ময়মনসিংহে চিনতে না পেরে দুই যুবককে গণপিটুনি

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২১ জুলাই ২০১৯, ১৮:৩২ | প্রকাশিত : ২১ জুলাই ২০১৯, ১৮:২৭
প্রতীকী ছবি

ময়মনসিংহের গৌরীপুর ও গফরগাঁওয়ে ‘ছেলেধরা’ ভেবে দুই যুবককে গণপিটুনি দিয়েছে স্থানীয় জনতা। পরে অবশ্য দুই যুবকের পরিচয় শনাক্ত হয়েছে। আর এদের একজন মানসিকভাবে ভারসাম্যহীন।

পদ্মাসেতু নিয়ে ছড়ানো উদ্ভট কথার মধ্যে এই ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার রাত এবং রবিবার দুপুরে।

কারো মাথা লাগবে না বলে সেতু কর্তৃপক্ষ বিবৃতি দিলেও গুজব এতটাই বিস্তার লাভ করেছে যে, এখানে সেখানে ঘটছে একই ধরনের ঘটনা। অচেনা হলেই জড়ো হয়ে চলছে জিজ্ঞাসাবাদ। আর সন্দেহ হলেই চলছে গণপিটুনি। ৪৮ ঘণ্টায় খুন হয়েছেন অন্তত চার জন। গণপিটুনির ঘটনা ঘটেছে ২০টিরও বেশি।  

গফরগাঁওয়ে গণধোলাইয়ের শিকার যুবকের নাম আনোয়ারুল হক। তার বাড়ি সাতক্ষীরায়। গৌরীপুরে পিটুনিতে আহত যুবকের নাসির উদ্দিন। তার বাড়ি একই উপজেলার অচিন্তপুর ইউনিয়নের কৃষ্ণপুর গ্রামে।

পুলিশ জানায়, শনিবার রাতে নাসিরকে গৌরীপুর ইউনিয়নের হিম্মতনগর বাজারে দেখতে পায় স্থানীয়রা। কিন্তু তাকে কেউ চিনতে পারছিল না। এক পর্যায়ে স্থানীয়রা তাকে পেটাতে থাকে।

 

পুলিশ উদ্ধার করার পর নাসির জানান, পাশের গ্রামের বন্ধু জুয়েল সঙ্গে দেখা করতে করতে সন্ধ্যায় হিম্মতনগর বাজারে যান তিনি। এ সময় ‘গলাকাটা’ ধরতে জনতা ধাওয়া দিলে তিনিও দৌড় দেন। অন্ধকারে একটি বাড়ির সামনে পড়ে যান। আর একজন জড়িয়ে ধরে বলে ‘কল্লাকাটা পাইছি’ বলে চিৎকার করে।

‘আমি বারবার বলি, আমার বাড়ি পাশের গ্রাম কৃষ্ণপুর, আমি কল্লাকাটা নই। কিন্তু কোন কথা না শুনেই আমাকে পেটাতে থাকে’-বলেন ভুক্তভোগী যুবক।

রাতে জনপ্রতিনিধি ও নাসিরের স্বজনরা থানায় আসেন।  তারা জানান, ওই যুবক নরসিংদী একটি মুরগির খামারে কাজ করেন। দীর্ঘদিন এলাকায় না থাকায় সেভাবে পরিচিতি নন। তবে ছেলেটি ভালো বলে শনাক্ত করে সবাই।

গৌরীপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) গোলাম মাওলা বলেন, এ ব্যাপারে (গণপিটুনি) আমরা তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করব।’

পরদিন দুপুরে গফরগাঁও পৌর এলাকার শিলাসী গ্রামে রেললাইন ধরে হাঁটার সময় হামলা হয় সাতক্ষীরার আনোয়ারুল হকের ওপর। স্বভাবতই তিনি এলাকায় পরিচিত ছিলেন না।

গফরগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবদুল আহাদ খান বলেন, আনোয়ারুল মানসিক ভারসাম্যহীন। তাকে উদ্ধার করে গফরগাঁও হাসতাপালে ভর্তির পাশাপাশি তার স্বজনদের খবর দেওয়া হয়েছে।

ঢাকাটাইমস/২১জুলাই/প্রতিনিধি/ডব্লিউবি

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :