ফরিদপুরে বন্যায় ২৬ প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পাঠদান বন্ধ

ফরিদপুর প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২১ জুলাই ২০১৯, ২০:৪৩

পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় ফরিদপুরের সার্বিক বন্যা পরিস্থিতির আরও অবনতি ঘটেছে। বন্যার পানিতে নিমজ্জিত হওয়ায় ২৬টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পাঠদান বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

পদ্মা নদীর পানি গোয়ালন্দ পয়েন্টে বর্তমানে বিপৎসীমার ৬৮ সে.মি উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

গোয়ালন্দ পয়েন্টের গেজ রিডার ইদ্রিস আলী জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ওই পয়েন্টে পদ্মা নদীর পানি আরও ২ সে.মি. বৃদ্ধি পেয়েছে। ফলে রবিবার সকাল ৬টায় ওই পয়েন্টে পদ্মা নদীর পানি বিপৎসীমার ৬৮ সে.মি (৯ দশমিক ৩৩) ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা তৌহিদুল ইসলাম বলেন, বন্যার পানিতে নিমজ্জিত হওয়ায় ফরিদপুরের বন্যাকবলিত তিনটি উপজেলার ২৬টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাঠদান রবিবার থেকে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে ফরিদপুর সদর ও  চরভদ্রাসনে সাতটি করে ১৪টি এবং সদরপুরে ১২ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। এছাড়া সদরপুরে দুটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভাঙনের ঝুঁকিতে রয়েছে।

সদরপুর উপজেলার পদ্মা আড়িয়াল নদে সম্প্রতি পানি বৃদ্ধি থাকায় তিনটি চরাঞ্চল প্লাবিত হয়ে পানিবন্দি হয়ে পড়েছে প্রায় পাঁচ হাজার পরিবার। নদের পানি ঘরে উঠায় চরম বিপাকে রয়েছে চরাঞ্চলের বাসিন্দারা। বিভিন্ন প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবিলায় হিমশিম খাচ্ছে খেঁটে খাওয়া হতদরিদ্ররা।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পূরবী গোলদার বলেন, বন্যায় পানিবন্দি পরিবারের খোঁজ খবর নেয়া হচ্ছে। ত্রাণ দেওয়া হচ্ছে। ত্রাণ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে। প্রশাসন সর্বদা তাদের পাশে রয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/২১জুলাই/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :