যৌতুক না দেয়ায় সিগারেটের ছ্যাকা

ভোলা প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৬ আগস্ট ২০১৯, ২০:০৯

ভোলায় যৌতুকের দাবিতে তাসলিমা বেগম নামের এক নারীর হাত-পা ও পুরো শরীরের নানা স্থান ঝলসে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে স্বামী কামাল হোসেনের বিরুদ্ধে। এই ঘটনায় ভোলা সদর থানায় মামলা করেছেন ভুক্তভোগী।

কামাল হোসেন ভোলা সদর উপজেলার ইলিশা ইউনিয়নের তিন নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা।

তাসলিমা জানান, প্রায় ১৬ বছর আগে কামালের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্কে গড়ে উঠে। পরে তারা পালিয়ে বিয়ে করেন। কামালের বাবা মা তাদের মেনে নেননি। এজন্য তিনি তার বাবার বাড়ি ভোলার ইলিশা বাসস্ট্যান্ড এলাকায় বসবাস করেন। কামালও সেখানে নিয়মিত যাতায়াত করতেন। বিয়ের তিন বছর পর জন্ম নেয় সন্তান রাব্বি।

‘এরপর থেকে কামাল আমাকে বিদেশে পাঠানোর জন্য বিভিন্ন সময় চাপ দিয়ে আসছিল। আমি রাজি না হলে সে আমাকে বিভিন্ন সময় মারধর করতো। পরে আমি বাধ্য হয়ে তিন বছর আগে জর্ডানে যাই। সেখানে দুই বছর দুই মাস থাকার পর দেশে ফিরে আসি।

‘এতে কামাল আমার প্রতি ক্ষিপ্ত হয়ে বিভিন্ন সময় মারধর করতো। দ্রুত যাতে আবার বিদেশে চলে যাই সে জন্য নির্যাতন চালাতে থাকত। পরে গত ৪-৫ মাস আগে কামাল আমার কাছ থেকে যৌতুক হিসেবে তিন লাখ টাকা দাবি করে। তখন আমি তাকে বলি, শ্বশুর বাড়ি এখনও যেতে পারিনি। আর তুমি আমার যৌতুক চাও? এ কথা বলার পর তিন মাস আগে আমাকে জোর করে তাদের বাড়ি নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে প্রতিদিন যৌতুকের জন্য নির্যাতন চালাতে থাকে।’

তাসলিমা বলেন, ‘রবিবার (২৫ আগস্ট) দুপুরে কামাল আমার কাছ থেকে গাড়ি কেনার জন্য টাকা দাবি করে। আমি দিতে অস্বীকার করায় আমার শ্বাশুরি ও স্বামী আমাকে হাত, পা ও মুখ বেঁধে মারধর করে। এবং জ্বলন্ত সিগারেটের আগুন দিয়ে হাত পা ও শরীরের বিভিন্ন অংশে অংশে ছ্যাকা দেয়।’
‘নির্যাতনে এক পর্যায়ে আমি জ্ঞান হারিয়ে ফেললে তারা মৃত ভেবে ঘর থেকে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা আমাকে উদ্ধার করে রাতে ভোলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।’

তাসলিমা বেগম ভোলা সদর হাসপাতালের চিকিৎসাধীন। এ বিষয়ে তার স্বামী কামালের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করলেও তাকে পাওয়া যায়নি।
ভোলা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ছগীর মিঞা বলেন, ‘আমরা আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা করছি।’

ঢাকাটাইমস/২৬আগস্ট/প্রতিনিধি/ডব্লিউবি

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :