স্কুলে জিয়ার নাম বদল, নতুন নাম মুছলো বিএনপি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৯ নভেম্বর ২০২০, ১৮:৩৫

প্রতিষ্ঠার এক যুগ পর হঠাৎ করে পুরান ঢাকার শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান উচ্চ বিদ্যালয়ের নাম পরিবর্তন করায় ক্ষোভে ফুঁসছেন বিএনপি কর্মীরা। মোগলটুলীতে অবস্থিত স্কুলের সামনে বিক্ষোভ করে বিক্ষুব্ধ কর্মীরা স্কুলের ফটকের নতুন নাম কালি দিয়ে মুছে দিয়েছেন।

এসময় তারা হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছেন, স্কুলের নাম পরিবর্তন করায় যে আন্দোলন শুরু হয়েছে এটা চলবে।

রবিবার বংশাল মোড় থেকে মিছিল শুরু করে বিএনপি নেতাকর্মীরা মোগলটুলী এলাকায় বিদ্যালয়টির সামনে যান। বিদ্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ করতে থাকেন বিএনপির নেতাকর্মীরা। এ সময় বিক্ষুব্ধ কর্মীরা বিদ্যালয়ের পরিবর্তিত নামফলক ‘পুরান মোগলটুলী উচ্চ বিদ্যালয়’ কালি দিয়ে লেপটে দেন।

মিছিলে নেতৃত্ব দেন বিএনপি নেতা ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন।

এক পর্যায়ে বিএনপির ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি হাবিব-উন-নবী খান সোহেল ও ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন নেতাকর্মীদের সেখান থেকে সরিয়ে নিয়ে যান। পরে নবাবপুর সড়কে পথসভা করেন তারা।

এ সময় ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন বলেন, ‘আমার বাবা অবিভক্ত ঢাকার শেষ মেয়র প্রয়াত সাদেক হোসেন খোকা ২০০৬ সালের ২৫ মার্চ জিয়াউর রহমানের নামে এই বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। কিন্তু রাজনৈতিক উদ্দেশে সম্প্রতি বিদ্যালয়ের নাম পরিবর্তন করে মোগলটুলী উচ্চ বিদ্যালয় করা হয়েছে।’

এলাকাবাসী বা কারও চাহিদা না থাকলেও সিটি করপোরেশন থেকে বিদ্যালয়টির নাম পরিবর্তন করেছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।

বিএনপির ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি হাবিব-উন-নবী খান সোহেল বলেন, ‘বিদ্যালয় থেকে নাম পরিবর্তন করলেই জিয়াউর রহমানের নাম মানুষের মন থেকে মুছে ফেলা যাবে না। এ ধরনের ন্যাক্কারজনক কর্মকাণ্ড দেশের সাধারণ মানুষ মেনে নেবে না।’

যে প্রতিবাদ শুরু হয়েছে তা চলবে বলে জানান বিএনপির এই নেতা।

এদিকে মোগলটুলী এলাকায় ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) কর্তৃক শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান উচ্চ বিদ্যালয়ের নাম পরিবর্তন করায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

(ঢাকাটাইমস/২৯নভেম্বর/বিইউ/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :