নানা হতে যাচ্ছেন আসিফ আকবর

বিনোদন প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৫ মে ২০২১, ১৫:০২

বাংলা গানের যুবরাজ কন্ঠশিল্পী আসিফ আকবর। তুমুল জনপ্রিয় এ শিল্পী সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেক সরব থাকেন। নানা বিষয় নিয়ে লেখালিখি করেন। এবার তিনি নানা হতে যাচ্ছেন। সে কথা ভক্ত শ্রোতাদের জানিয়ে দিলেন।

শিল্পী ফেসবুকে লিখেছেন- মায়া খুব কঠিন বাস্তবতা। মা হওয়ার পথে এগুনো মেয়েটার ভিতর অদ্ভূত মাতৃত্ব ফুটে ওঠে চলনে বলনে। বখাটে আমিও ছিলাম, আমার উত্তরসুরীরা এখনো বখাটেই রয়ে গেছে, পূর্বসুরীদের আর না জ্বালাই! প্রত্যেকটা পুরুষ একেকটা ঘৃন্য ধর্ষক হতে পারে, তবে একটা পুরুষও মা হতে যাওয়া মেয়েটার সাথে কখনোই বিরুপ হতে পারে না। মায়ের মর্যাদা মাথায় নিয়ে ঘোরা প্রতিটা পুরুষ এ সময়টায় খুব আবেগী থাকে।

ব্যতিক্রম তো থাকেই, উদাহরণও আছে, তারপরও পুরুষের মধ্যে ভালো কিছু আবেগ লুক্কায়িত থাকে যেগুলো প্রকাশ করা হয়ে উঠে না আসলেই। কিছু অব্যক্ত আর্তনাদ পুরুষের থাকে, সেই অনুভূতিটা হয়তো কখনোই সে সামনে নিয়ে আসবে না। এটা একধরনের পৌরুষদীপ্ত ইগো, এর মূল্য ধরলে আছে, না বুঝলে ভালবাসাটা পরিবারের আনন্দের সাথে বিলীন হয়ে যায় কষ্টের বুকে ছুরি মেরে।

অল্প বয়সে বিয়ে করা আমি পিতৃত্বের আনন্দ পেয়েছি বেলা অবেলার কোনো এক ফাঁকে। ছেলেরা এখন নিজেদের বাবাকে গালে কপালে চুমু দেয়া যুবক। তাদের বর্তমান বয়সে আমি বাবা হয়েছি, তারা রয়েছে বিবাগীর মতো, কিছু বুঝে উঠতে পারি না। ওরা কবে বিয়ে করবে কিংবা তাদের প্ল্যান কি সে সম্বন্ধে আমার ন্যুনতম ধারনা নেই, যেমন ছিল না আমার নিজের বেলায়ও। ছেলেরা আমার সাথে ডিপ্লোম্যাটিক আচরণে থাকে, তাদের বধ্যমূল ধারণা আমি পেটে কথা রাখতে পারি না, এবং তারা সঠিক।

বাসায় বিড়াল বাচ্চাদের একটা আস্তানা হয়েছে। আমি নিজেও তাদের সাথে একাত্ম হয়ে মিশে গেছি। অন্যজগতের স্বর্গীয় প্রেমে আটকে ফেলেছে বাচ্চাগুলো। বিড়ালের সংসার হয় না, এরা সংসারী না। কোনভাবে আমাদের মেয়ে বিড়াল টুকটুক (গায়ের রং কালো বলে আমি আদর করে ডাকি কালী) এখন সন্তানসম্ভবা। রণ ভেট হসপিটাল থেকে মেডিক্যাল চেকআপ করিয়ে এনে খুব সাবধানে আছে, মাঝমাঝে ওর পেটে হাত দিয়ে ভিতরে থাকা বাচ্চাগুলোর অবস্থান টের পেতে চায়। রুদ্র আরো সাবধানী, কালী’কে কোলে নেয়ার সময় একটু ভীতুই থাকে। রণ রুদ্র যখন ওদের মায়ের পেটে ছিল তখন আমিও এমন করতাম। উশৃঙ্খল এই আমিও সন্তানের আগমন বার্তায় বেগমের পেটে বেবীটার অস্তিত্ব টের পেতে চাইতাম। একজন পুরুষের জীবনে সম্তানের আগমন বার্তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ আনন্দের বিষয়।

মাতৃত্ব পিতৃত্ব সবসময়ের সেরা অর্জন, মহান আল্লাহ প্রদত্ত শ্রেষ্ঠ নেয়ামত। একটা বিড়ালছানা মা হবে, আমি আর আমার ছেলেরা ভালো পুরুষের মতো বাচ্চা দুটোর গুড ল্যান্ডিং এর অপেক্ষায় আছি। রণ রুদ্র’র সিনিসিয়ারিটি দেখে ফিল করছি তারা তাদের বেগমদেরও অনেক ভালবাসবে। টুকটুক মা হতে যাচ্ছে। আমি হবো নানা, বেগম হবেন নানী। আপনারাও নিজ দায়িত্বে টুকটুকের আত্মীয় হয়ে যান, ও অনেক মায়াবতী। ভালবাসা অবিরাম।

ঢাকাটাইমস/১৫মে/এসকেএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিনোদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :