আবহাওয়া উপযোগী টিকা দিতে কোভ্যাক্সকে বাংলাদেশের চিঠি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৩ জুন ২০২১, ১৭:৫১

দেশের ৮০ শতাংশ মানুষের টিকা নিশ্চিতে চীন ও রাশিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ অব্যাহত রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মুখপাত্র নাজমুল ইসলাম। এছাড়া বাংলাদেশের আবহাওয়ার সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ টিকা চেয়ে কোভ্যাক্সকে চিঠি দেয়া হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

রবিবার দুপুরে করোনাভাইরাস পরিস্থিতি নিয়ে নিয়মিত অনলাইন বুলেটিনে এসব কথা জানান স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এই মুখপাত্র।

নাজমুল ইসলাম বলেন, দেশের ৮০ শতাংশ মানুষের টিকা নিশ্চিতে চীন ও রাশিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ অব্যাহত রয়েছে। এমনকি কোভ্যাক্সের মাধ্যমে যে টিকা পাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে- তাদের আমরা বারবার জানিয়েছি, বাংলাদেশের আবহাওয়ার সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ এবং আমাদের ইপিআরে রাখা যাবে এমন টিকা যেন আমাদের দেওয়া হয়। যেটি আমরা সহজেই মানুষের মধ্যে প্রয়োগ করতে পারি। দেশের জনগণকে দিতে পারি।

নাজমুল ইসলাম বলেন, ফাইজার-বায়োএনটেকের যে ১ লাখ ৬২০ ডোজ টিকা পেয়েছি তা এখনই প্রয়োগ শুরু করতে পারছি না। এই টিকায় ডাইলুয়েন্ট নামের মিশ্রণ মেশাতে হবে। সেই মিশ্রণ গত সোমবার রাতে আসার কথা থাকলেও আসেনি। ডাইলুয়েন্ট মিশ্রণ ছাড়া ফাইজারের টিকা প্রয়োগ করা যায় না। এর জন্য যোগাযোগ করা হচ্ছে। সেটি দেশে এলে ফাইজারের টিকা কত তারিখ থেকে দেওয়া যাবে তা জানানো হবে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এই মুখপাত্র বলেন, দেশে এই মুহূর্তে ৪০ থেকে ৫০ হাজার পরীক্ষা করার সক্ষমতা রয়েছে। যদি করোনা পরীক্ষার জন্য উপস্থিতি সংখ্যা বাড়ে তাহলে আমরা পরীক্ষা বাড়াতে পারব।

করোনাভাইরাস প্রতিরোধী টিকার চরম সংকটের মধ্যে বাংলাদেশকে ১০ লাখ ৮০০ ডোজ অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা দেবে বলে জানিয়েছে ওয়াশিংটন। এই টিকা আসবে কোভ্যাক্সের মাধ্যমেই।

অ্যাস্ট্রাজেনেকার এই টিকা কবে দেশে আসছে জানতে চাইলে নাজমুল ইসলাম বলেন, এটা আলাপ-আলোচনার পর্যায়ে রয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি, টিকা পাওয়ার সুসংবাদ যেকোনো সময় পেয়ে যাব। অক্সফোর্ডের টিকা বাংলাদেশে আরও অন্তত ১৪ লাখ লাগবে। কারণ, যাদের সিরাম থেকে পাওয়া টিকার প্রথম ডোজ দেওয়া হয়েছিল টিকার অভাবে তাদের সবাইকে দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া যায়নি।

(ঢাকাটাইমস/১৩জুন/বিইউ/এমআর)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :