ওয়ালটন এসিতে ২২ শতাংশ পর্যন্ত ছাড়, ৩৬ মাসের ইএমআই সুবিধা

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০২ আগস্ট ২০২১, ১৪:৫৫

এয়ার কন্ডিশনার গ্রাহকদের আকর্ষণীয় সব সুবিধা দিচ্ছে বাংলাদেশি সুপারব্র্যান্ড ওয়ালটন। ‘সুপার ডিল, বিকাম চিল’ ক্যাম্পেইনের আওতায় ইনভার্টার, নন-ইনভার্টার ও স্মার্ট ইনভার্টারসহ অর্ধশতাধিক নির্দিষ্ট মডেলের এসিতে সর্বোচ্চ ২২ শতাংশ পর্যন্ত ডিসকাউন্ট দিচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি। রয়েছে ফ্রি ইনস্টলেশন সুবিধা। সম্প্রতি ওয়ালটনের ডিজিটাল ক্যাম্পেইন সিজন-১১ সমাপ্ত হয়েছে। ওই ক্যাম্পেইন ব্যাপক গ্রাহকপ্রিয়তা পেয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় এসির গ্রাহকদের জন্য নতুন এই ক্যাম্পেইন চালু করলো ওয়ালটন।

ওয়ালটন থেকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

জানা গেছে, ওয়ালটন ই-প্লাজা থেকে নির্দিষ্ট মডেলের সর্বোচ্চ ২ টনের এসি কিনলেই গ্রাহকরা পাচ্ছেন ২২% পর্যন্ত ডিসকাউন্ট। এছাড়া রয়েছে অনলাইনে ১০% ডিসকাউন্টে ১২ মাস পর্যন্ত ০% ইন্টারেস্টে ইএমআই সুবিধা। পাশাপাশি নির্দিষ্ট ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ডে ৩৬ মাস পর্যন্ত ইএমআই সুবিধা পাচ্ছেন গ্রাহক। ক্রেতাদের জন্য এসব সুযোগ থাকছে ৩১ আগস্ট পর্যন্ত।

ওয়ালটন এসির চিফ বিজনেস অফিসার মোঃ তানভীর রহমান জানান, পূর্ব ঘোষিত ডিজিটাল ক্যাম্পেইনগুলো এবং ‘সুপার সেভিং ডিল’ ক্যাম্পেইন গ্রাহকপ্রিয়তা পাওয়ায় ক্রেতাদের জন্য নতুন ক্যাম্পেইন ঘোষণা করা হয়েছে। এর আওতায় ওয়ালটনের রিভারাইন, ভেনচুরি, বেভেলিন, ক্রিস্টালাইন ও ডায়মন্ড সিরিজের ১, ১.৫ ও ২ টনের ব্যাপক বিদ্যুৎসাশ্রয়ী ইনভার্টার ও নন-ইনভার্টার প্রযুক্তির এসিতে এই ছাড় দেওয়া হচ্ছে। ওয়ালটন ই-প্লাজা থেকে এসি কেনায় গ্রাহকরা এই সুবিধাগুলো পাচ্ছেন।

ওয়ালটন এসি প্রোডাক্টের ব্র্যান্ড ম্যানেজার খলিলুর রহমান জানান, সারা দেশে ১৭ হাজারেরও বেশি আউটলেটের পাশাপাশি ঘরে বসেই ওয়ালটনের নিজস্ব অনলাইন শপ ‘ই-প্লাজা ডট ওয়ালটনবিডি ডটকম’ (https://eplaza.waltonbd.com) থেকে ক্রেতারা তাদের পছন্দের এসি কিনতে পারছেন। এসির বিভিন্ন মডেল সম্পর্কে জানতে, ঘরে বসে অনলাইনে অর্ডার করতে এবং ওয়ালটনের সেলস আউটলেটের সঙ্গে যোগাযোগ করতে যথাক্রমে ভিজিট করা যাবে (https://eplaza.waltonbd.com) এই লিংকে। বিস্তারিত জানার জন্য যোগাযোগ করা যাবে ১৬২৬৭ অথবা ০৯৬১২৩১৬২৬৭ নম্বরে।

এদিকে, সারা দেশে ওয়ালটন এসি এক্সচেঞ্জ সুবিধা রয়েছে। ওয়ালটন প্লাজা ও ডিলার শোরুমে যে কোনো ব্র্যান্ডের পুরনো এসি জমা দিয়ে ওয়ালটনের নতুন এসি কেনা যাচ্ছে। পুরনো এসি জমা দিয়ে গ্রাহক তার পছন্দকৃত নতুন ওয়ালটন এসিতে ২৫ শতাংশ ছাড় পাচ্ছেন। তবে এই সুবিধা ‘সুপার ডিল, বিকাম চিল’ ক্যাম্পেইনে কার্যকর নয়।

ওয়ালটন এসির সেলস কো-অর্ডিনেটর মাহমুদুল ইসলাম জানান, তাদের সব এসি আন্তর্জাতিক স্ট্যান্ডার্ড মেনে ডিজাইন করা হচ্ছে। এতে ব্যবহৃত হচ্ছে সঠিক স্পেসিফিকেশনের ক্যাবল বা তার। আন্তর্জাতিক স্ট্যান্ডার্ড মেনে তৈরি ওয়ালটন এসির ক¤েপ্রসরে ব্যবহৃত হচ্ছে বিশ্বস্বীকৃত সম্পূর্ণ পরিবেশবান্ধব এইচএফসি গ্যাসমুক্ত আর-৪১০এ এবং আর-৩২ রেফ্রিজারেন্ট। রয়েছে টার্বোমুড, ডুয়েল ডিফেন্ডার এবং আয়োনাইজার প্রযুক্তি, যা দ্রæত ঠান্ডা করার পাশাপাশি রুমের বাতাসকে ধুলা-ময়লা ও ব্যাকটেরিয়া থেকে মুক্ত করে। ইভাপোরেটর এবং কন্ডেন্সারে মরিচারোধক গোল্ডেন ফিন কালার প্রযুক্তি ব্যবহার করায় ওয়ালটন এসি অনেক টেকসই, দীর্ঘস্থায়ী ও নিরাপদ।

কর্তৃপক্ষ জানায়, ওয়ালটন এসি আন্তর্জাতিকমানের টেস্টিং ল্যাব নাসদাত-ইউটিএস থেকে মান নিয়ন্ত্রণ সনদ পাওয়ার পরে বাজারজাত করা হয়। তাই এসিতে এক বছরের রিপ্লেসমেন্টের পাশাপাশি ইনভার্টার এসির ক¤েপ্রসরে ১০ বছর পর্যন্ত গ্যারান্টি সুবিধা দিচ্ছে ওয়ালটন।

স্থানীয় বাজারে এবছর ইউরোপিয়ান ডিজাইনের অত্যাধুনিক ফিচারের ১ টন, ১.৫ টন ও ২ টনের নতুন মডেলের স্পিøট টাইপ এসি ছেড়েছে ওয়ালটন। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী হচ্ছে ইনভার্টার প্রযুক্তির সুপারসেভার ইনভার্না এসি। এক টনের ইনভার্না এসিতে ইকো-মুডে প্রতি ঘণ্টায় বিদ্যুৎ খরচ মাত্র ২ টাকা ৮৮ পয়সা। যা বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক সার্টিফাইড।

সম্প্রতি বাজারে এসেছে ওশেনাস সিরিজের ভয়েস কমান্ড সমৃদ্ধ ‘কথা বলা’ নতুন মডেলের এসি। এটি বাজারে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। রিমোট কন্ট্রোল ছাড়াই ব্যবহারকারী মুখে কথার মাধ্যমে নির্দেশনা দিয়ে এই এসি পরিচালনা করতে পারেন। এছাড়া ওয়ালটনের স্মার্ট কন্ট্রোল এসি মুঠোফোনর মাধ্যমে নিয়ন্ত্রণ করা যায় বিশ্বের যে কোনো প্রান্ত থেকেই।

১, ১.৫ এবং ২ টনের স্পিট এসির পাশাপাশি স্কুল-কলেজ, মসজিদ, মাদ্রাসা, হাসপাতাল, হোটেলের মতো মাঝারি স্থাপনার জন্য ৪ ও ৫ টনের ক্যাসেট ও সিলিং টাইপ এসি ব্যাপকভাবে বাজারজাত করছে ওয়ালটন। বড় স্থাপনার জন্য ওয়ালটনের রয়েছে ভেরিয়্যাবল রেফ্রিজারেন্ট ফ্লো বা ভিআরএফ এবং চিলার।

দ্রæত ও সর্বোত্তম বিক্রয়োত্তর সেবা দিতে আইএসও সনদপ্রাপ্ত সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের আওতায় সারা দেশে ওয়ালটনের রয়েছে ৭৬টি সার্ভিস সেন্টার। পাশাপাশি প্রায় ৩০০ সার্ভিস পার্টনারের মাধ্যমে দেশব্যাপী এসির গ্রাহকদের সেবা দিচ্ছে ওয়ালটন। ওয়ালটনের দক্ষ ও অভিজ্ঞ প্রকৌশলী এবং টেকনিশিয়ানরা প্রতি ১০০ দিন পর পর এসির ক্রেতাদের ফ্রি সার্ভিসিং দিচ্ছেন।

(ঢাকাটাইমস/২আগষ্ট/এসআই)

সংবাদটি শেয়ার করুন

অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :