হেলেনা জাহাঙ্গীর আরও ১৪ দিনের রিমান্ডে

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০৩ আগস্ট ২০২১, ১৯:১৫ | প্রকাশিত : ০৩ আগস্ট ২০২১, ১৫:১৬

আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক উপকমিটি থেকে বহিষ্কার হওয়া নেত্রী হেলেনা জাহাঙ্গীরকে চার মামলায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আরও ১৪ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

এর মধ্যে গুলশান থানায় দায়ের হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে তাকে তিন দিন করে ছয় দিন ও পল্লবী থানায় চাঁদাবাজির অভিযোগ ও টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় আট দিনের রিমান্ড মঞ্জুর হয়েছে।

মঙ্গলবার ঢাকার মহানগর হাকিম নিভানা খায়ের জেসী ও ঢাকার মহানগর হাকিম শাহিনুর রহমানের আদালত পৃথক শুনানি শেষে এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন। আদালতের সাধারণ নিবন্ধন শাখার কর্মকর্তা এসআই মো. আলমগীর এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, মঙ্গলবার তদন্ত কর্মকর্তা শেখ শাহানুর রহমান তাকে দুই মামলায় যথাক্রমে ১০ দিনের ও পাঁচ দিনের হেফাজতে নিতে আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারক নিভানা খায়ের জেসী দুই মামলায় তিন দিন করে ছয় দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। অন্যদিকে গুলশান থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য হেলেনার তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছিল আদালত। রিমান্ড শেষে মঙ্গলবার আদালতে হাজির করে দুই মামলায় ফের রিমান্ড চাইলে মোট আট দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন বিচারক শাহিনুর রহমানের আদালত।

গত বৃহস্পতিবার রাত ১২টার দিকে গুলশানের ৩৬ নম্বর রোডের ৫ নম্বর বাসায় প্রায় চার ঘণ্টা অভিযান শেষে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। তার বাসা থেকে বিদেশি মদ, অবৈধ ওয়াকিটকি সেট, চাকু, বৈদেশিক মুদ্রা, ক্যাসিনো সরঞ্জাম ও হরিণের চামড়া উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তারের পর তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য র‌্যাব সদরদপ্তরে নিয়ে যাওয়া হয়। এছাড়া হেলেনা জাহাঙ্গীরের মালিকানাধীন আইপি টেলিভিশন জয়যাত্রার কার্যালয়ে অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন সরঞ্জামাদি জব্দ করা হয়।

গ্রেপ্তারের পর ব্যবসায়ী থেকে রাজনীতিতে আসা হেলেনার বিরুদ্ধে তিনটি মামলা করা হয়। গত শুক্রবার রাতে গুলশান থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে একটি মামলা হয়। একই থানায় হেলেনার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন, বিশেষ ক্ষমতা আইন, বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ আইন এবং টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ আইনের সংশ্লিষ্ট ধারাগুলো একত্রিত করে দ্বিতীয় মামলাটি করা হয়। সেই রাতেই রাজধানীর পল্লবী থানায় টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ আইনে আরেকটি মামলাটি করা হয়।

ঢাকাটাইমস/০৩আগস্ট/কারই/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

আদালত বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :