দল, নেত্রী ও নারায়ণগঞ্জবাসীর কাছে আমি কৃতজ্ঞ: আইভী

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১৬ জানুয়ারি ২০২২, ২১:৩৩ | প্রকাশিত : ১৬ জানুয়ারি ২০২২, ২০:৪৫

বিপুল ভোটের ব্যবধানে টানা তৃতীয়বারের মতো নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে নিজ দল ও নারায়ণগঞ্জবাসীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী।

রবিবার রাতে তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় আইভী সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমার কৃতজ্ঞতা জানানোর ভাষা নেই। আমি আমার দল আওয়ামী লীগ, দলের সভাপতি জননেত্রী শেখ হাসিনা এবং সর্বোপরি নারায়ণগঞ্জের জনগণের কাছে কৃতজ্ঞ।’

আইভী বলেন, ‘অনেক ভয়-ভীতি উপেক্ষা করে জনগণ আমাকে ভোট দিয়েছেন। তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানানোর ভাষা নেই।’

মেয়র পদে হ্যাটট্রিক করা আইভী বলেন, ‘আমি আগেই বলেছিলাম, যতই গর্জন হোক, ভোটের দিন নারায়ণগঞ্জের মানুষ উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দেবে। আর সেটাই হয়েছে।’

সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেন, ‘আমার এই জয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী তৈমূর আলম খন্দকারও খুশি হবেন। কারণ, চুনকার (আলী আহম্মদ চুনকা, আইভীর বাবা) মেয়ের বিজয় মানে তৈমূরের বিজয়। যতদিন বেঁচে আছি আওয়ামী লীগের ছায়াতলে থাকবো এবং নারায়ণগঞ্জবাসীর সেবা করে যাবো।’

১৯২টি কেন্দ্রের ফলাফলে নৌকা প্রতীকে আইভী পেয়েছেন এক লাখ ৬১ হাজার ২৭৩ ভোট। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী হাতি প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী তৈমূর আলম খন্দকার পেয়েছেন ৯২ হাজার ১৭১ ভোট। ৬৯ হাজার ১০২ ভোটের ব্যবধানে জয়ী হয়েছেন সেলিনা হায়াৎ আইভী।

এর আগে ২০১১ সালের প্রথম সিটি নির্বাচনে আওয়ামী লীগের সমর্থিত প্রার্থী শামীম ওসমানকে এক লাখের বেশি ভোটের ব্যবধানে পরাজিত করেন আইভী। ২০১৬ সালে এই সিটির দ্বিতীয় নির্বাচনে প্রথমবারের মতো দলীয় প্রতীকে ভোট হয়। সেই নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থী অ্যাডভোকেট সাখাওয়াত হোসেনকে ৮০ হাজারের বেশি ভোটে তিনি পরাজিত করেন।

টানা তৃতীয়বারের মতো বিজয়ী হয়ে আইভী নারায়ণগঞ্জে নিজেকে নিজেকে অপ্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে প্রমাণ করেছেন। সিটি করপোরেশন হওয়ার আগে ২০০৩ সালে নারায়ণগঞ্জ পৌরসভার প্রথম নারী মেয়র হিসেবে চমক সৃষ্টি করেছিলেন আইভী।

(ঢাকাটাইমস/১৬জানুয়ারি/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :