ভৈরবে দুই সন্তানের মায়ের আত্মহত্যা

ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ২২ অক্টোবর ২০২৩, ১৭:৫০

ভৈরবে দুই সন্তানের মা নাজমা বেগমের (২৭) ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। রবিবার বেলা ১১টার দিকে পৌর শহরের আমলাপাড়া এলাকার লিপি ভবনের একটি রুম থেকে গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার করে ভৈরব থানা পুলিশ।

নিহত নাজমা বেগম পৌর শহরের পঞ্চবটি এলাকার সোলায়মান মিয়ার মেয়ে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পৌর শহরের আমলাপাড়া এলাকার খোকন মিয়ার বাসায় সকালে গৃহবধূ নাজমার দুই কন্যা সন্তান জান্নাত ও রৌজা ঘুম থেকে উঠে দেখতে পান পাশের রুমের দরজা লাগানো রয়েছে। তাদের চিৎকার চেঁচামেচিতে স্থানীয়রা এসে দরজা ভেঙে দেখেন ঘরের সিলিং ফ্যানের সঙ্গে উড়না পেঁচিয়ে ফাঁসিতে ঝুলে আছে নাজমা বেগম। পরে খবর পেয়ে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায় ।

নিহতের বাবা সোলায়মান মিয়া জানান, ১২ বছর আগে নরসিংদী জেলার দুলালকান্দি গ্রামের জাকির হোসেনের সঙ্গে বিয়ে হয় নাজমা বেগমের। তাদের দুটি কন্যা সন্তান রয়েছে। গত ১ বছর আগে জাকির মিয়ার সঙ্গে পারিবারিক দ্বন্দ্বে তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। এরপর থেকে ২ মেয়ে নিয়ে নাজমা বেগম হতাশ ও দুশ্চিতার মধ্যে দিনযাপন করেন। আমার ছেলে ও মেয়ে তাদের ভরণপোষণ দিতো। শনিবারও সে আমার বাড়ি থেকে আমাদের সাথে দেখা করে এসেছে। হঠাৎ সকাল বেলা শুনতে পাই আমার মেয়ে আত্মহত্যা করেছে। আমার দুটি নাতনি চির তরে এতিম হয়ে গেলো। তাদের বাবা থেকেও নেই।

এ বিষয়ে ভৈরব থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ মাকছুদুল আলম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসি। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। অভিযোগের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

(ঢাকাটাইমস/২২অক্টোবর/এআর)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :