শীতে কলা খেলে ওজন কমে তরতরিয়ে! হার্ট আর কিডনিও থাকে সুস্থ-সবল

ঢাকা টাইমস ডেস্ক
 | প্রকাশিত : ২৮ ডিসেম্বর ২০২৩, ০৮:৪২

শীত এলে অনেকেই কলার মতো একটি উপকারী ফলের সঙ্গে দূরত্ব বাড়িয়ে দেন। তাদের মতে, এমন হিমেল দিনে কলায় কামড় বসালেই ঠান্ডা লাগবে। এমনকি বুকে জমতে পারে কফ। তাই তারা এই সময় কলা ছুঁয়েও দেখেন না।

তবে সাধারণ জনগণের একাংশের মনে এমন ভুল ধারণা বসে থাকতে দেখেই চোখ কপালে উঠছে বিশেষজ্ঞদের। তাই তারা অভয় দিয়ে জানাচ্ছেন যে, শীতে নির্ভয়ে কলা খেতে পারেন। তাতে ঠান্ডা লাগার আশঙ্কা তো থাকেই না, উল্টো একাধিক উপকারই পাবেন।

তাই আর দেরি না করে এই প্রতিবেদন থেকে শীতে কলা খাওয়ার একাধিক উপকার সম্পর্কে জেনে নিন। আশা করছি, এই প্রতিবেদনটি পড়ার পর আপনার ভুল ভেঙে যাবে। তারপর আপনিও এই ফলকে ডায়েটে জায়গা করে দেবেন। তাতেই ফিরবে আপনার স্বাস্থ্যের হাল।

পুষ্টিগুণের ভাণ্ডার

অতি পরিচিত কলায় রয়েছে ভিটামিন সি, রাইবোফ্ল্যাভিন, ফোলেট, নিয়াসিন, কপার, পটাশিয়াম, ম্যাগনেশিয়াম থেকে শুরু করে একাধিক জরুরি খনিজ এবং ভিটামিন। এছাড়া এই ফল অত্যন্ত উপকারী কিছু অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং ফাইটোনিউট্রিয়েন্টের আঁতুরঘর। এই দুই উপাদান একাধিক ক্রনিক রোগের ফাঁদ এড়াতে সাহায্য করে। তাই সুস্থ থাকতে চাইলে যত দ্রুত সম্ভব কলার সঙ্গে বন্ধুত্ব পাতিয়ে নিন।

ফিরবে পেটের হাল

আমাদের মধ্যে অনেকেই নিয়মিত গ্যাস, অ্যাসিডিটির মতো পেটের সমস্যায় ভোগেন। কিন্তু তারপরও এই সমস্যা থেকে চিরতরে মুক্তির উপায় খুঁজে পান না। এসব সমস্যায় একদম মহৌষধের কাজ করে ফাইবার সমৃদ্ধ কলা। তাই গ্যাস, অ্যাসিডিটির মতো সমস্যাকে চিরতরে ‘গুড বাই’ জানিয়ে সুস্থ-সবল জীবনযাপন করার ইচ্ছা থাকলে ডায়েটে প্রতিদিন কলা থাকা মাস্ট।

ওজন কমবে তরতরিয়ে

বিশেষজ্ঞদের কথায়, ওজন স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি থাকলে একাধিক জটিল অসুখে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বাড়ে। তাই যেনতেন প্রকারেণ ওজন কমাতে হবে। এই কাজে আপনার ব্রহ্মাস্ত্র হতে পারে কলা। কারণ এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার, যা কিনা দীর্ঘক্ষণ পেট ভরিয়ে রাখে।

অনেকক্ষণ পেট ভরে থাকলে খাওয়ার ইচ্ছে চলে যায়। আর কম খেলে যে অচিরেই নিম্নমুখী হবে ওজনের কাঁটা, তা তো বলাই বাহুল্য! তাই আপনার ওয়েট লস ডায়েটেও কলাকে জায়গা করে দিতেই পারেন। তাতেই খেলা ঘুরে যাবে।

হার্ট থাকবে সুস্থ-সবল

আজকাল কম বয়সেই অনেকের পিছু নিচ্ছে হার্ট অ্যাটাক, হার্ট ফেলিওর, অ্যারিদমিয়ার মতো অসুখ। তাই ছোট-বড় সবাইকে হার্টের দিকে নজর ফেরানোর পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

এই কাজে আপনার সহযোগী হতে পারে কলা। কারণ এই ফলে রয়েছে পটাশিয়ামের ভাণ্ডার, যা কিনা হাই ব্লাড প্রেশারকে বশে রাখার কাজে সিদ্ধহস্ত। আর রক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারলে যে হার্ট থাকবে সুস্থ-সবল, তা আর আলাদা করে বলার অপেক্ষা রাখে না!

কিডনির বন্ধু

আমাদের শরীরের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি অঙ্গ হলো কিডনি। তাই যেনতেন প্রকারেণ এই অঙ্গের স্বাস্থ্যের দিকে নজর ফেরাতেই হবে। নইলে ক্রনিক কিডনি ডিজিজে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বাড়বে।

তবে ভালো খবর হলো, নিয়মিত পটাশিয়াম সমৃদ্ধ কলা খেলেই কিডনির স্বাস্থ্যের হাল ফিরবে। তাই শীত, গ্রীষ্ম, বর্ষা- বছরের ৩৬৫ দিন কলা খেতেই পারেন। তাতেই আপনার সুস্থ থাকার পথ প্রশস্ত হবে।

(ঢাকাটাইমস/২৮ডিসেম্বর/এজে)

সংবাদটি শেয়ার করুন

ফিচার বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :