মুরাদের অশ্লীল কথাবার্তার ১৭টি অডিও-ভিডিও সরানো হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ১১:৫৫

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া সদ্য সাবেক তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের অশালীন বক্তব্যের ২৭২টি অডিও-ভিডিও চিহ্নিত করেছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। এর মধ্যে ১৫টি ফেসবুক থেকে ও দুটি ইউটিউব থেকে দুইটি অপসারণ করা হয়েছে।

বুধবার আদালতকে এ তথ্য জানিয়েছেন বিটিআরসির আইনজীবী ব্যারিস্টার খন্দকার রেজা-ই-রাকিব।

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নাতনিকে নিয়ে সম্প্রতি ‘অশ্লীল ও কুরুচিপূর্ণ’মন্তব্য করেন প্রতিমন্ত্রী মুরাদ। এমন মন্তব্যের পর মুরাদ হাসানের পদত্যাগের দাবি তোলে বিএনপি।

তাঁর ওই বক্তব্যের সমালোচনায় সোচ্চার হয়েছিলেন নারী অধিকারকর্মীসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ। প্রতিমন্ত্রীর পদ থেকে মুরাদ হাসানকে অব্যাহতি দেওয়ার দাবিও উঠেছিল। এর মধ্যে গত রবিবার ঢাকাই চলচ্চিত্র নায়িকা মাহীর সঙ্গে প্রতিমন্ত্রী মুরাদের টেলিফোন কথোপকথনের একটি অডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। সেখানে ওই চিত্রনায়িকার উদ্দেশে তাঁকে ‘কুরুচিপূর্ণ’কথা বলতে শোনা গেছে। এই কথোপকথন নিয়েও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যাপক সমালোচনা চলে ব্যাপক ঝড়।

ফেসবুকসহ সব অনলাইন প্ল্যাটফর্ম ছড়িয়ে পড়া মুরাদ হাসানের অশ্লীল এসব অডিও ও ভিডিও বন্ধের জন্য গতকাল আদালতের দ্বারস্থ হন ব্যারিস্টার সায়েদুল হক সুমন। পরে বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এক দিনের মধ্যে এসব অডিও ও ভিডিও সরাতে বিটিআরসি চেয়ারম্যানকে নির্দেশ দেন।

বুধবার বিটিআরসির আইনজীবী খন্দকার রেজা ই রাকিব আদালতকে জানান, আদালতের নির্দেশ পাওয়ার পর কাজ শুরু করে বিটিআরসি। এরইমধ্যে ১৫টি সাইট চিহ্নিত করে সেগুলো সরিয়ে ফেলেছে ফেসবুক, আর দুটি সরিয়ে ফেলেছে ইউটিউব।

ঢাকাটাইমস/৮ডিসেম্বর/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

আদালত বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :