টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ স্বামী-স্ত্রী নিহত

মোঃ শাহীন টেকনাফ (কক্সবাজার)
| আপডেট : ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৯:১৭ | প্রকাশিত : ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৮:৪৬

টেকনাফে রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পে পুলিশের সঙ্গে কথিত 'বন্দুকযুদ্ধে' এক রোহিঙ্গা দম্পতি নিহত হয়েছেন। তারা রোহিঙ্গা ডাকাত দলের সঙ্গে জড়িত বলে দাবি পুলিশের। এ ঘটনায় তিন পুলিশ সদস্যও আহত হয়েছেন।

শনিবার দিবাগত মধ্যরাতে লেদা-২৪নং ক্যাম্প সি-ব্লক এলাকায় এ গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। নিহতরা হচ্ছেন- হ্নীলার লেদা রোহিঙ্গা ক্যাম্প সি-ব্লকের মৃত কাদের হোসাইনের পুত্র দিল মোহাম্মদ (৩২) ও তার স্ত্রী জাহেদা (২৭)। এর আগে দেশীয় তৈরি তিনটি অস্ত্র, ৮ রাউন্ড তাজা কার্তুজ ও ১২ রাউন্ড গুলির খোসাসহ তাদের আটক করা হয়েছিল।

পুলিশ জানায়, শনিবার রাতে রোহিঙ্গা ক্যাম্প এলাকা থেকে অস্ত্রসহ ডাকাত দলের সাথে জড়িত জাহেদা ও দিল মোহাম্মদকে আটক করা হয়। এরপর পুলিশ তাদের নিয়ে রাত ১২টার পর লেদা ২৪নং ক্যাম্প সি-ব্লক এলাকায় অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার অভিযানে যায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ডাকাত দলের সদস্যরা আসামিদের ছিনিয়ে নিতে পুলিশ সদস্যদের লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলি বর্ষণ করে। এতে পুলিশের তিন সদস্য আহত হন। তারা হলেন, এএসআই নিজাম এবং কনস্টেবল শাহাদত ও সুদর্শন। পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছোঁড়ে। উভয়পক্ষের গোলাগুলিতে আটক স্বামী-স্ত্রী গুলিবিদ্ধ হন। তাদের উদ্ধার করে টেকনাফ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠান।

সেখানে পৌছানোর পর দায়িত্বরত চিকিৎসক তাদেরকে মৃত ঘোষণা করেন বলে জানান টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ। তিনি আরো বলেন, মাদক প্রতিরোধসহ বিভিন্ন অপরাধে জড়িতদের বিরুদ্ধে পুলিশের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

ঢাকাটাইমস/২২সেপ্টেম্বর/এএইচ/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :