মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাইয়ে উৎকোচ ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ

বরগুনা প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৩ মে ২০১৭, ১৯:০০

মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাইয়ের নামে উৎকোচ গ্রহণ, স্বজনপ্রীতি, স্বেচ্ছাচারিতা ও প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধাদের নাম তালিকাভুক্ত না হওয়ার অভিযোগে মানববন্ধন ও সমাবেশ করেছে বরগুনা সদর উপজেলার মুক্তিযোদ্ধাদের একাংশ।

শনিবার সকাল সাড়ে দশটায় বরগুনা প্রেসক্লাব চত্বরে এ কর্মসূচি পালিত হয়।

এসময় বক্তারা বলেন, সম্প্রতি যাচাই-বাছাই শেষে গত সাত মে নিবন্ধিত মুক্তিযোদ্ধাদের নামের তালিকা বরগুনা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে নোটিস বোর্ডে টানানো হয়েছে।

কিন্তু এ তালিকার ‘অধিকাংশ মুক্তিযোদ্ধা প্রকৃত মৃক্তিযোদ্ধা নয়’ দাবি করে বক্তারা বলেন, আমরা যারা মানববন্ধন ও সমাবেশে অংশগ্রহণ করেছি- তারা সবাই প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা।

বক্তারা বলেন, মুক্তিযুদ্ধ না করেই যুদ্ধের সময় যারা মুক্তিযুদ্ধবিরোধী কার্যক্রমের সাথে জড়িত ছিল- তাদের নাম উৎকোচের বিনিময়ে তালিকাভুক্ত করা হয়েছে।

‘মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাইয়ের সময় তাদের কাছে উৎকোচ চাওয়া হয়’ জানিয়ে বক্তারা বলেন, আমরা প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা হওয়ায় তাদের এ অন্যায় আবদার পূরণ না করায়, ভুয়া মুক্তিযোদ্ধাদের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে আমাদের নাম বাদ দিয়ে তাদের নাম অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।

এসময় তারা ভুয়া মুক্তিযোদ্ধাদের নাম বাদ দিয়ে প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধাদের নাম নতুন তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করার দাবি জানান।

এ বিষয়ে জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার আবদুর রশীদ বলেন, মুক্তিযোদ্ধা যাচাই-বাছাইয়ের সময় কোন অনিয়ম ও দুর্নীতি হয়নি। যারা প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা, তাদের নামই মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হয়েছে।

সমাবেশে বক্তব্য রাখেন- গোলাম ছগির মজনু, একেএম হাফিজুর রহমান মন্টু, আবদুল লতিফ খান, মজিবুর রহমান মৃধা প্রমুখ।

(ঢাকাটাইমস/১৩মে/প্রতিনিধি/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত