রাস্তা থেকে ধরে নিয়ে মুক্তিপণ আদায়ে ‘সাদা বাহিনী’

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৬ অক্টোবর ২০১৬, ১৯:৩১

রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে স্বজনদের সঙ্গে যোগাযোগ করে মুক্তিপণ আদায়ের অভিযোগ উঠেছে কথিত সাদা বাহিনীর বিরুদ্ধে। নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে অপহরণের পর টাকা দিয়ে ফিরে আসা একজন জানিয়েছেন, তার মতো আরও একজনকে ধরে নিয়ে তার চেয়েও বেশি টাকা আদায় করেছে দুর্বৃত্তরা।

ভুক্তভোগীর নাম রুহুল আমিন মোল্লা। তার বাসা নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের হাটাবো এলাকায়। অপহৃত হওয়ার পর মুক্তি দেয়ার শর্ত হিসেবে তার স্বজনদেরকে ৪০ হাজার টাকা পরিশোধ করতে হয়েছে। রুহুলের স্বজনরা এই টাকা পরিশোধ করেছেন বিকাশে।

রুহুল আমিন মোল্লার ভাতিজা ইউসুফ মোল্লা জানান, সকাল সাতটার দিকে তার চাচা হাটাবোর নিজ বাড়ি থেকে অটোরিকশায় করে রাজধানীর মোহাম্মদপুরে মেয়ের বাসায় যাচ্ছিলেন। পথে রূপগঞ্জের মুড়াপাড়া ফেরিঘাট থেকে তাকে মাইক্রোবাসে করে তুলে নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা।

এরপর অপহরণকারীরা রুহুলের স্বজনদের সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করে নিজেদের সাদাবাহিনী পরিচয় দিয়ে ৫০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করে। টাকা না দেয়া হলে রুহুলকে হত্যার পর লাশ ফেলে রাখার হুমকি দেয় তারা। পরে ভাতিজা ইউসুফ মোল্লা রূপগঞ্জ থানাকে বিষয়টি জানান।
দুপুর পার হয়ে গেলেও মুক্তিপণের টাকা না পাঠানোয় রুহুল আমিন মোল্লাকে নির্যাতন শুরু করা হয়। এরপর একটি বিকাশ নম্বরে ৪০ হাজার টাকা পাঠানো হয়। পরে গাজীপুর চৌরাস্তা এলাকায় ফেলে রেখে যায় অপহরণকারীরা।
রুহুল আমিন মোল্লা ঢাকাটাইমসকে জানান, তার মতো আরো একজনকে অপহরণ করেছিল দুর্বৃত্তরা। ওই ব্যক্তির পরিবারের কাছ থেকে মুক্তিপণ হিসেবে এক লাখ ৭০ হাজার টাকা বিকাশের মাধ্যমে আনা হয়।  তবে তার নাম বা পরিচয় জানাতে পারেননি রুহুল।
এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইসমাইল হোসেন ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘অপহরণকারী চক্রটিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।’

ঢাকাটাইমস/০৬অক্টোবর/ডব্লিউবি

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত