৩১ অস্ত্রসহ দুই বাহিনীর ২৫ জলদস্যুর আত্মসমর্পণ

পটুয়াখালী প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৯ এপ্রিল ২০১৭, ১৫:৫৪ | প্রকাশিত : ২৯ এপ্রিল ২০১৭, ১৪:০৪

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে ৩১ অস্ত্র জমা দিয়ে আত্মসমর্পণ করেছেন সুন্দরবনের জলদস্যু দুই বাহিনীর ২৫ সদস্য। শনিবার বেলা ১১টায় পটুয়াখালী শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে আলিফ ও কবিরাজ বাহিনীর প্রধানসহ বাহিনী দুটির এসব সদস্য আসাদুজ্জামান খাঁন কামালের কাছে আত্মসমর্পণ করেন।

এ নিয়ে গত এক বছরে সুন্দরবনের ছোট বড় মোট ১২টি দস্যু বাহিনী অস্ত্র সমর্পণ করলো। সব মিলিয়ে স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে দস্যু জীবন ছেড়েছেন ১৩২ জন। অস্ত্র জমা পড়েছে ২৩৭টি। গুলি জমা পড়েছে ১৩ হাজারেরও বেশি।

এদের মধ্যে আলিফ বাহিনীর প্রধান আরিফ মোল্লা ওরফে দয়ালের নেতৃত্বে ১৯ জন এবং কবিরাজ বাহিনীর প্রধান ইউনুস আলী শেখ ওরফে কবিরাজের নেতৃত্বে বাহিনীটির ছয় সদস্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে অস্ত্র জমা দেন।

জমা দেয়া অস্ত্রের মধ্যে ছিল ১০টি বিদেশি একনলা বন্দুক, সাতটি বিদেশি দোনলা বন্দুক, চারটি (২২ বোর) বিদেশি এয়ার রাইফেল, ছয়টি ওয়ান শ্যুটারগান এবং চারটি কাটা রাইফেলসহ ৩১টি আগ্নেয়াস্ত্র। এছাড়া ১১শ’ ১০ রাউন্ড গোলাবারুদও জমা দেন তারা।

আত্মসর্মপণ অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ এবং র‌্যাব-৮ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল মো. আনোয়ার উজ  জামান, স্থানীয় প্রশাসনের কর্মকর্তা, স্থানীয় মৎস্য ব্যবসায়ীসহ বিভিন্ন শ্রেণির শত শত মানুষ।

এর আগে জাহাঙ্গীর, মজনু, ইলিয়াস বাহিনীসহ সুন্দরবনের বেশ কয়েকটি বাহিনী স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে অস্ত্র জমা দিয়ে আত্মসমর্পণ করেছিল।

ঢাকাটাইমস/২৯এপ্রিল/প্রতিনিধি/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত