কালকিনিতে স্কুলছাত্রকে কুপিয়ে জখম, আটক ১

কালকিনি (মাদারীপুর) প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৬ মে ২০১৭, ১২:২৩

পূর্বশত্রুতার জের ধরে মাদারীপুরের কালকিনিতে নেয়ামতউল্লাহ নামে এক স্কুলছাত্রকে কুপিয়ে জখম করেছেন এক সাবেক সেনা সদস্য। আহত নেয়ামত কাষ্টগড় তালুকদার বাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র। এ ঘটনায় ওই সাবেক সেনা সদস্যের স্ত্রীকে আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার সকালে এ ঘটনায় একটি লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এলাকা ও ভুক্তভোগীর পরিবার সূত্রে জানা গেছে, পৌর এলাকার চড়লক্ষ্মী গ্রামের নিজামউদ্দিনের সাথে একই এলাকার সাবেক সেনা সদস্য সিদ্দিক বেপারীর জমিজমা নিয়ে পূর্বশত্রুতা চলে আসছিল। এর জের ধরে নিজামউদ্দিনের স্কুল পড়ুয়া ছেলে নিয়ামতউল্লাকে একা পেয়ে সাবেক সেনা সদস্য সিদ্দিক বেপারী ধারালো দা দিয়ে কুপিয়ে জখম করে। পরে স্থানীয়রা দেখতে পেয়ে আহত ছাত্রকে বরিশাল সেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ ঘটনায় শিক্ষার্থীর পরিবার কালকিনি থানায় একটি মামলা করেন।

এ মামলায় ওই সাবেক সেনা সদস্যের স্ত্রী নূরনাহার বেগমকে আটক করেছে পুলিশ। তবে ঘটনার পর থেকেই সাবেক সেনা সদস্য সিদ্দিক বেপারী পলাতক রয়েছেন।

আহত ছাত্রের বড় বোন তামান্না বেগম বলেন, আমার ভাইকে হত্যার উদ্দেশ্যে কুপিয়ে আহত করেছে সিদ্দিক বেপারী। আমরা সিদ্দিক বেপারীর দৃষ্টান্তমূলক বিচার চাই।

এ বিষয় জানতে চাইলে সিদ্দিক বেপারী সাথে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

কাষ্টগড় তালুকদার বাড়ি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বাবু হরিপদ দাশ বলেন, আমাদের স্কুলের ছাত্র নেয়ামতউল্লাহকে এ ন্যাক্কারজনক হামলার ঘটনার সঠিক বিচার দাবি জানাই। আমরা ওই হামলাকারীর গ্রেপ্তারের দাবিতে কর্মসূচি পালন করব।

কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, থানায় মামলা হয়েছে। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারের প্রচেষ্টা চলছে।

(ঢাকাটাইমস/৬মে/প্রতিনিধি/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত