লংগদুতে আগুন: বিচারিক তদন্ত চেয়ে আইনি নোটিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১২ জুন ২০১৭, ১৪:৩০ | প্রকাশিত : ১২ জুন ২০১৭, ১৩:১৭
ফাইল ছবি

পার্বত্য জেলা রাঙামাটির লংগদুতে পাহাড়ি জনগোষ্ঠীর বসতবাড়িতে আগুন ও হামলার ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্ত ও ক্ষতিগ্রস্তদের ক্ষতিপূরণ দেয়ার দাবি জানিয়ে আইনি নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী নিকোলাস চাকমা আজ সোমবার রেজিস্ট্রি ডাকযোগে এই নোটিশ পাঠিয়েছেন। তিনি নিজেই বিষয়টি সাংবাদিকদের নিশ্চিত করেছেন।

নিকোলাস চাকমা বলেন, নোটিশ প্রাপ্তির ৭২ ঘণ্টার মধ্যে এই বিষয়ে কার্যকর পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছে। অন্যথায় সংবিধানের ১০২ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

স্বরাষ্ট্র সচিব, সমাজকল্যাণ সচিব, নারী ও শিশু কল্যাণ সচিব, পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব, পুলিশ মহাপরিদর্শক, চট্টগ্রামের রেঞ্জের ডিআইজি, রাঙ্গামাটির জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার, লংদু উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে নোটিশে বিবাদী করা হয়েছে।

নোটিশে বলা হয়েছে, পাহাড়ি জনগোষ্ঠীর রক্ষায় স্থানীয় প্রশাসনের কোনো ব্যর্থতা রয়েছে কি না তা সুপ্রিম কোর্টের একজন অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতির নেতৃত্বে তদন্ত করতে হবে। এই তদন্তের মাধ্যমে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ও ক্ষতিগ্রস্তদের পুনর্বাসনে কি পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে তাও খতিয়ে দেখতে বলা হয়েছে।

লংগদু সদর ইউনিয়ন যুবলীগের এক নেতার লাশ উদ্ধারের পর আয়োজিত এক বিক্ষোভ মিছিল থেকে গত ২ জুন উপজেলা সদরের কয়েকটি এলাকার পাহাড়িদের দুই শতাধিক বাড়িঘরে আগুন দেয়া হয়। এ ঘটনায় গত ৫ জুন লংগদু হামলার বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য ঊষাতন তালুকদার।

পয়েন্ট অফ অর্ডারে দাঁড়িয়ে তিনি বলেন, লংগদুদের নিহতের ঘটনার সেন্টিমেন্টকে পুঁজি করে দুর্বৃত্তরা মিছিলের মাঝে ঘাপটি মেরে থেকে পূর্বপরিকল্পিতভাবে পাহাড়িদের গ্রামে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে। ২২০টির বেশি ঘরবাড়িতে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে। দোকানে আগুন দেওয়া হয়েছে। এখনো লোকজন আশ্বস্ত হতে পারছেন না। তারা চরম নিরাপত্তাহীনতার মধ্যে বৃষ্টি বাদলের দিনে বনে বাদাড়ে অবস্থান করছেন। এরা যাতে কোনো অবস্থাতে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড করে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করে সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করতে না পারে তার জন্য বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি করছি।

গত ১ জুন খাগড়াছড়ি-দীঘিনালা সড়কের চার মাইল এলাকা থেকে ভাড়ায় মোটর সাইকেল চালানোর কাজ করা যুবলীগের লংগদু সদর ইউনিয়ন শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক নূরুল ইসলাম নয়নের লাশ উদ্ধার করা হয়। পরের দিন ২ জুন সকালে লাশ নিয়ে লংগদু সদরে বিক্ষোভ-মিছিল বের হয়। মিছিল থেকে পাহাড়িদের বাড়িঘরে ইট-পাটকেল নিক্ষেপের পর এক পর্যায়ে স্থানীয় তিনটিলা পাড়া, বাত্যাপাড়া, মানিকজুড়, বড়দম এলাকার পাহাড়িদের ঘরবাড়ি-দোকানপাটে আগুন দেওয়া হয়।

(ঢাকাটাইমস/১২জুন/এমএবি/জেডএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আদালত বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত