কলাবাগানে স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যায় যুবকের বিরুদ্ধে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৭:৩৬ | প্রকাশিত : ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৬:৫৯

রাজধানীর কলাবাগান এলাকায় এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় তার স্বামী ফেরদৌসকে আসামি করে কলাবাগান থানায় একটি মামলা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১ টায় নিহত সাজেদার বড় বোন মায়াতুল বেগম বাদী হয়ে এ মামলা করেন। পুলিশ অভিযুক্ত ফেরদৌসকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠিয়েছে। তার রিমান্ডের আবেদন করেছে পুলিশ।

কলাবাগান থানার ডিউটি অফিসার উপপরিদর্শক নজরুল ইসলাম ঢাকাটাইমসকে বলেন, আজ বেলা সাড়ে ১১ টার সময় নিহত সাজেদার বড় বোন মায়াতুল বেগম বাদী হয়ে একমাত্র আসামি ফেরদৌসের বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা করেছেন। মামলা নম্বর-০৬। মামলাটির তদন্ত করছেন কলাবাগান থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ঠাকুরদাস মাল্ ু।

গতকাল বুধবার রাতে কলাবাগান এলাকায় নর্থ সার্কুলার রোডের একটি বাসায় সাজেদা নামের এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা করেন তার স্বামী। পরে প্রতিবেশীরা ঘাতক স্বামীকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দেয়।

কলাবাগান থানার পুলিশ জানায়, নিহত সাজেদা দুই শিশুসন্তানসহ স্বামী ফেরদৌস আলম আলমের সঙ্গে নর্থ সার্কুলার রোডের একটি বাসায় থাকতেন। তার স্বামী রিকশাচালক। বুধবার রাত সাড়ে আটটার দিকে ফেরদৌস বাসায় ফেরেন। এ সময় স্ত্রীর সঙ্গে তার ঝগড়াঝাটি হয়। একপর্যায়ে তিনি সাজেদাকে দা দিয়ে কুপিয়ে জখম করেন। এতে ঘটনাস্থলে তিনি মারা যান।

প্রতিবেশীদের বরাত দিয়ে পুলিশ বলেছে, সাজেদার চিৎকারে প্রতিবেশীরা ওই বাসায় গেলে ফেরদৌস পালানোর চেষ্টা করেন। তখন লোকজন তাকে আটকে পুলিশের খবর দেয়। পুলিশ ফেরদৌসকে থানায় নিয়ে যায়। সাজেদার মরদেহ উদ্ধার করে করে ঢাকা মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিহত সাজেদা হবিগঞ্জ জেলার বাহুবল থানার উজিরপুর (কবিরপুর) গ্রামের মৃত আবদুস সোবাহানের মেয়ে। তার শাওন নামের ও বাঁধন নামের দুইটি ছেলে সন্তান রয়েছে।

ঢাকাটাইমস/১৩ ফেব্রুয়ারি/এএ/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজধানী বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :