পুরুষ শূন্য ছাতারপাড়া

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৯ জুলাই ২০২০, ২৩:৪৮

নোয়াব আলী। তিনি ছাতারপাড়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি। তার ক্ষমতার দাপটই আলাদা। তার ভয়ে এলাকার শান্তিপ্রিয় জনগণ মুখ খুলতে পারে না। তার রয়েছে বিশাল এক বাহিনী। এ বাহিনীর সদস্যরা রাতে প্রতিপক্ষের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে ঘরের দরজা, জানালা, খাট ও টিউবয়েলের মাথা লুট করছে। এছাড়া মাঠের পাট, কচু, মরিচ, ধইঞ্চা কেটে নিয়ে যাচ্ছে। যা দেখার বা বলার কেউ নেই। প্রতিবাদ করলেই তার উপর নেমে পড়ছে থড়গ হস্ত। রাতে তার পরিবারের উপর নেমে পড়ছে নির্যাতন।

এদের নেতৃত্বে গত বুধবার দিবাগত রাতে শাহারুল ও মনো রদ্দিনের বাড়িতে ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটায়। ফলে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের ছাতারপাড়া বাগুনবাড়ীয়া এলাকায় এখন পুরুষ শূন্য হয়ে পড়েছে। মূলত জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে এ ঘটনাটি ঘটেছে।

শনিবার বিকালে ওই এলাকায় গেলে এ এলাকার ১৩০টি পরিবারের শিশু ও মহিলাদের চোখে মুখে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

ওই এলাকার আব্দুর রশিদ বলেন, নোয়াব আলীর নেতৃত্বে এ গ্রামের ১৩০টি পরিবারের সবার কম বেশি ক্ষতি করেছে। তারা রাতে দলবেঁধে এসে বাড়িঘর ও তিনটি বৈদ্যুতিক মিটার ভাঙচুর ও ফসলের ক্ষতি করছে। আমাদের পাড়ার প্রায় দশ লক্ষ টাকার ক্ষতি করেছে।

মনো রদ্দিন বলেন, আমার ঘরের দরজা, জানালা ও খাট নিয়ে গেছে। একটি ককটেল মেরেছে। আর রাতে অস্ত্র ধরে সব কিছু নিয়ে গেছে। শিখা খাতুন বলেন, আমার বাড়িতে রাতে ককটেল মেরেছে। আমরা খুব ভয়ে ভয়ে আছি। বাড়িতে পুরুষ মানুষ কেউ নেই।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত নোয়াব আলী বলেন, আমার বিরুদ্ধে যেসব অভিযোগ করা হচ্ছে- তা সব মিথ্যা। একটি তৃতীয় পক্ষের লোকজন এসব লুটপাট করছে।

আড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান সাইদ আনসারী বিপ্লব বলেন, এলাকার শান্তি ফেরাতে জোর চেষ্টা করা হচ্ছে। যাতে কোন অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে- সে জন্য পুলিশ সদস্যরা তৎপর রয়েছে।

দৌলতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আরিফুর রহমান বলেন, কে বা কারা এই সব ক্ষতি করছে- আমার জানা নেই। তবে ঘটনাটি আমি শুনেছি। আমাদের পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

(ঢাকাটাইমস/১৯জুলাই/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :