সুনামগঞ্জে বিচারের দাবিতে গ্রামবাসীর মানববন্ধন

নিজস্ব প্রতিবেদক, সুনামগঞ্জ
 | প্রকাশিত : ২৩ জুন ২০২১, ২২:১৬

সুনামগঞ্জের সীমান্ত এলাকায় তুচ্ছ বিষয় নিয়ে কথা কাটাকাটির জেরে প্রভাবশালী প্রতিপক্ষের লোকজন একই পরিবারের চারজনকে কুপিয়ে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। আহতদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। তারা এখন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

এই ঘটনায় জড়িতদের বিচারের দাবিতে বুধবার বিকালে সদর উপজেলার রঙ্গারচর ইউনিয়নের দর্পগ্রাম (উত্তরপাড়া) গ্রামবাসী মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে।

এর পূর্বে আহত পরিবারের পক্ষ থেকে তাদের স্বজনরা সংবাদ সম্মেলনে ঘটনার সাথে জড়িতদের দ্রুত আইনের আওতায় আনার দাবি জানান।

জানা যায়, সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার রঙ্গারচর ইউনিয়নের দর্পগ্রাম (উত্তরপাড়া) নতুন জামে মসজিদের নির্মাণ কাজ ও তহবিলের হিসাব নিয়ে গত শুক্রবার জুমার নামাজের পরে একই গ্রামের নূর আলমের সাথে কথা কাটাকাটি হয় প্রতিপক্ষের চাঁন মিয়ার। এরই জেরে এক পর্যায়ে চাঁন মিয়ার পুত্র আফজাল হোসেন ও তার আত্মীয়-স্বজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে মসজিদে নূর আলম ও তার আত্মীয়-স্বজনের ওপর হামলা চালায়। মুহূর্তের মধ্যেই প্রভাবশালী আফজাল হোসেনের নেতৃত্বে তার লোকজন রাম দা দিয়ে এলোপাথারি কোপাতে থাকলে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন একই পরিবারের নূর আলম (৪৫), বাছির মিয়া (৩০), নাসির উদ্দিন (৩৫), হারুনুর রশীদ (৫৫)। পরে গ্রামবাসী তাদের উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে।

মানববন্ধনে গ্রামবাসীরা বলেন, প্রতিপক্ষের লোকজন প্রভাবশালী ও উশৃঙ্খল হওয়ায় নিরীহ এক পরিবারের চারজনকে কুপিয়ে আহত করে। তারা এখন হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে। আমরা এর সুষ্ঠু বিচার চাই।

মানববন্ধন কর্মসূচিতে গ্রামবাসীদের মধ্যে বক্তব্য দেন- আব্দুল আমিন, কাশেম, আজাদ মিয়া, নেকবর আলী, আজমান আলী, মিজান মিয়া, মোস্তফা মিয়া, হানিফ মিয়া, মনফর আলী, আব্দুল করিম, দুর্বাজ আলী, রাসেল মিয়া, মোহাম্মদ আলী, হাবিল মিয়া, সাহাব উদ্দিন, হারুন অর রশীদ, তছলিমা বেগম, সকিনা বেগম প্রমুখ।

(ঢাকাটাইমস/২৩জুন/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :