প্রফেসর ডা. শাহ আলম তালুকদারের ইন্তেকাল

ঢাকাটাইমস ডেস্ক
 | প্রকাশিত : ১৭ জুন ২০১৭, ১১:৩৩

হজরত খাজা ইউনুস আলী এনায়েতপুরীর (র.) নাতজামাই ও এনায়েতপুর দরবার শরিফের বর্তমান গদিনশিন হুজুরপাক হজরত খাজা কামালউদ্দিন নূহ মিয়া’র দ্বিতীয় জামাতা এবং আবদুল হক তালুকদারের সন্তান প্রফেসর ডা. মো. শাহ আলম তালুকদার গত শুক্রবার জুমার নামাজের সময় ঢাকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেছেন। (ইন্না লিল্লাহি ---রাজিউন)। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৫ বছর।

ডা. মো. শাহ আলম তালুকদার হলি ফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের এনাটমি বিভাগের প্রফেসর ছিলেন। তিনি কর্মজীবনে শহীদ সোহরাওয়ার্দ্দী হাসপাতাল, ঢাকা মেডিকেল কলেজ, স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ, খুলনা মেডিকেল কলেজ, ঢাকা ডেন্টাল কলেজ, রংপুর মেডিকেল কলেজ ও জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালে দায়িত্ব পালন করেছেন।

তিনি ছিলেন বাংলাদেশের একজন অভিজ্ঞ এনাটমির প্রফেসর। তাঁর মৃত্যুতে বাংলাদেশ একজন স্বনামধন্য এনাটমির প্রফেসরকে হারালো। তাঁর বহু কৃতি ছাত্র-ছাত্রী এখন দেশ ও বিদেশে গুরুত্বপূর্ণ হাসপাতালে দায়িত্ব পালন করছেন।

মৃত্যুকালে তিনি তাঁর স্ত্রী খাজা সামসুন নাহার ও একমাত্র কন্যা কানাডা প্রবাসী ডা. বুশরা ফারহানা আলমসহ অনেক আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। 

ডা. শাহ আলম তালুকদার রাজশাহী মেডিকেল কলেজ থেকে ১৯৭৫ সালে এমবিবিএস পাস করেন। আইপিজিএমআর (বর্তমান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ) থেকে এমফিল এবং যুক্তরাজ্যের ডান্ডি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ডিপ্লোমা ইন মেডিকেল এডুকেশন ডিগ্রি লাভ করেন। তিনি অস্ট্রেলিয়ার সিডনি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভিজিটিং ফেলো হিসেবে দীর্ঘ এক বছর কাজ করেন।

ডা. শাহ আলম তালুকদারের মৃত্যুতে এনায়েতপুর দরবার শরিফের গদিনশিন হুজুর পাক ও তাঁর পরিবারের প্রত্যেক সদস্য এবং আত্মীয়স্বজন- সবাই শোকাহত। তাঁর সহকর্মী, ছাত্র-ছাত্রী এবং শুভানুধ্যায়ী সকলে শোকাহত ও মর্মাহত।

প্রফেসর ডা. শাহ আলম ছিলেন একজন নিবেদিত প্রাণ মানুষ। একজন রোগীবান্ধব চিকিৎসক। আর্ত-মানবতার সেবায় তিনি সারাজীবন ব্যাপৃত ছিলেন। তাঁর স্ত্রী ও কন্যা তাঁর রুহের মাগফেরাতের জন্য দেশবাসীসহ সকল আত্মীয়স্বজনের দোয়া কামনা করেছেন।

শনিবার বাদ জোহর এনায়েতপুর দরবার শরিফে জানাজা শেষে দরবার শরিফের কবরস্থানে তাঁকে সমাহিত করা হবে।

(ঢাকাটাইমস/১৭জুন/জেবি)  

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত