চার হাজার শরণার্থী নিয়ে তুর্কি দম্পতির বিয়ে উদযাপন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৭:৫৩

সাধারণত বিয়েতে সংস্কৃতি, গোত্র, ধর্ম, দেশ এবং সামাজিক শ্রেণিভেদে ব্যাপক বৈচিত্র্য পরিলক্ষিত হয়। বিয়েকে স্মরণীয় ও উৎসবমুখর করতে মানুষ নানান আয়োজন করেন। এমনই এক ব্যতিক্রমর্ধী আয়োজন করলেন তুরস্কের এক দম্পতি। তারা বিয়ের অনুষ্ঠানে প্রতিবেশি সিরিয়া থেকে আসা প্রায় চার হাজার শরণার্থীকে আমন্ত্রণ করেন। বিয়ের অনুষ্ঠানে শরণার্থীদের আমন্ত্রণ জানানোয় মানবিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন বলে প্রশংসায় ভাসছেন নবদম্পতি।

সম্প্রতি, তুরস্কের সীমান্তবর্তী কিলস প্রদেশে এই বিয়ের আয়োজন হয়। সেখানে শরণার্থীদের সঙ্গে বিয়ের আনন্দ ভাগ করে নেন নবদম্পতি ও তাদের আত্মীয়রা।

শরণার্থীদের বিয়ের অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণের ধারণাটি প্রথম বরের বাবা চিন্তা করেন। তিনি স্থানীয় একটি সংবাদপত্রকে বলেন, আমার ভেবেছিলাম বিয়ের উৎসব সিরিয়ার শরণার্থী ভাই ও বোনদের সঙ্গে একত্রে উদযাপন করা উচিত। এ উৎসবটি আমাদের পরিবারের সবার জন্য স্মরণীয়। অন্যরাও বিয়ের উৎসবে শরণার্থীদের আমন্ত্রণ জানাবে বলে তিনি আশা করেন।

এ ধরনের উদযাপন সম্পর্কে কনে জানান, যখন বাবা বিয়ের অনুষ্ঠানে শরণার্থীদের আমন্ত্রণের বিষয়টি শুনে মর্মাহত হয়েছিলাম। পরবর্তীতে আমি রাজি হয়। সত্যিকার অর্থে এ উৎসবটি আমার জীবনের অন্যতম সেরা একটি উৎসব। যাদের সত্যিই জীবনে উৎসবের আনন্দ প্রয়োজন, তাদের সঙ্গে বিয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করতে পেরে আমি আনন্দিত।

এ ঘটনাকে নিজের জীবনের অন্যতম সেরা একটি মুহূর্ত বলে বর অভিমত প্রকাশ করেন। ইতিমধ্যে বরের অন্য বন্ধুরাও বিয়েতে শরণার্থীদের আমন্ত্রণ জানানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন।

প্রতিবেশি রাষ্ট্র সিরিয়ায় সংঘাত শুরু হওয়ার পর দেশটির বিশ লাখেরও বেশি শরণার্থীকে আশ্রয় দিয়েছে তুরস্ক। সেখানে তারা মানবেতর জীবনযাপন করছে। তাদের মধ্যে নেই কোন উৎসব। প্রতিদিন তাদের জীবন অনিশ্চিত পথে চলছে। 

ঢাকাটাইমস/১৫সেপ্টেম্বর/আরআর/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :