হামলায় তছনছ সন্ধানীর কার্যালয়, অধ্যক্ষ বললেন ‘স্বাভাবিক ব্যাপার’!

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০:২৩ | প্রকাশিত : ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২০:২২

কয়েকজন যুবকের অতর্কিত হামলায় তছনছ হয়ে যায় বাংলাদেশে মেডিকেলের স্বেচ্ছাসেবী রক্তদান সংগঠন সন্ধানীর কার্যালয়। হামলার পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ছবিতে দেখা গেছে, সংরক্ষিত রক্তের ফ্রিজ ভাঙা। ফ্লোরে পরে আছে নেতৃবৃন্দের নামের তালিকা সম্বলিত বোর্ড, কাচের কিছু ভাঙা সামগ্রী, উল্টে পরে আছে চেয়ার-টেবিল।

যদিও প্রতিষ্ঠানটির প্রধান পরিতোষ কুমার বড়ালের দাবি এটা কোনো ঘটনা না। এই ভাঙচুর ইন্টারনাল বিষয়। এটা গণমাধ্যমে প্রকাশের মত কিছু না।

ভাঙচুরের বিষয়ে মঙ্গলবার রাতে ঢাকা টাইমসকে মেডিকেলের অধ্যক্ষ বলেন, ‘এটা কোনো বিষয় হলো? ভাঙচুর হয়েছে সামান্য কিছু। এ নিয়ে নিউজ করার কিছু আছে বলে মনে করি না।’ এমন ভাঙচুর সবসময়ই হয় কি না- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘না সবসময় হয় না। এখন যা হয়েছে এটা খুবই মামুলি। কেউ হয়তো ফুলিয়ে বড় করে সামনে নিয়ে আসতেছে।’

যদিও এই ভাঙচুরের ঘটনার রহস্য উদঘাটনে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি করা হয়েছে বলে জানা গেছে। কলেজের অধ্যক্ষ বলেন, ‘সাতদিনের মধ্যে তদন্ত কমিটিকে রিপোর্ট দেয়ার জন্য বলা হয়েছে। রিপোর্ট পেলে বলা যাবে কারা এরসঙ্গে জড়িত।’

এদিকে এই মামলায় দায়িদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ মেডিকেল ছাত্রলীগ।

ঢাকাটাইমসকে শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ডা. ইনতিসার কামাল সাদাত বলেন, আমরা চাই যে বা যারা এই ঘটনায় জড়িত তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি। ছাত্রলীগের কেউ জড়িত থাকলে তার বহিষ্কার দাবি করছি।

জানা গেছে, শুক্রবার রাতে হাসপাতালের সন্ধানী কার‌্যালয়ে কয়েকজন যুবক হঠাৎ করে ঢুকে রুমে বেপরোয়া ভাঙচুর চালায়। এতে ফ্রিজ ভেঙে যায়। অন্যান্য কাঁচের সামগ্রী ভাঙা হয়, চেয়ার-টেবিল, কাগজপত্র তছনছ করা হয়। ফ্রিজে রাখা রক্তও নিয়ে যাওয়া হয়।

এসময় হামলাকারীরা কার‌্যালয়ের ট্রয়ালে থাকা ১৬ হাজার টাকা নিয়ে যায় বলেও জানা গেছে।

বেশ শক্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থার মধ্যেও সন্ধানী কার‌্যালয়ের জিনিসপত্র ও রোগীদের জন্য সংগৃহীত রক্তের ব্যাগ নিয়ে যাওয়ার ঘটনায় অনেকেই উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

ঢাকাটাইমস/০৫ডিসেম্বর/বিইউ/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজধানী বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :