নুপুর শর্মাকে সমর্থন করায় দর্জিকে কুপিয়ে হত্যা, রাজস্থানে রেড অ্যালার্ট

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৯ জুন ২০২২, ১১:১৪ | প্রকাশিত : ২৯ জুন ২০২২, ১১:১১

ভারতের রাজস্থানে নবীজীকে কটূক্তিকারী সাবেক বিজেপি নেত্রী নুপুর শর্মাকে সমর্থন জানিয়ে সামাজিক মাধ্যমে পোস্টের কারণে এক দর্জি নিহতের ঘটনায় আগামী ২৪ ঘণ্টা গণজমায়েত ও ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্নের পাশাপাশি সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করা হয়েছে ।

এনডিটিভি জানায়, নিহত ওই দর্জির নাম কানহাইয়া লাল। সম্প্রীতি তিনি সাবেক বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মাকে সমর্থন জানিয়ে সামাজিক মাধ্যমে একটি পোস্ট দিয়েছিলেন। এরই প্রতিক্রিয়ায় উদয়পুরে নিজ দোকানে তাকে গলা কেটে হত্যা করে গোস মোহাম্মদ ও রিয়াজ নামে দুই ব্যক্তি।

পুলিশ জানায়, গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে দুই ব্যক্তি নিহত কানহাইয়া লালের কাপড়ের দোকানে প্রবেশ করেন। এসময় একজন ধারালো ছুরি দিয়ে কানহিয়াকে আঘাত করেন। সে কানহিয়ার মস্তক শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন করতে চাইলেও সেটি পারেনি। পরে ছুরি দিয়ে কানহিয়ার গলা কেটে ফেলে। এ সময় একজন ছুরি দিয়ে নিহত দর্জির গলা কাটে আর আরেকজন ঘটনার ভিডিও ধারণ করে।

পরে সে ভিডিও তারা সামাজিক মাধ্যমে পোস্ট করে।

ভিডিওতে দেখা যায়, দর্জি কানহাইয়াকে হত্যার পর উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে হত্যাকারীরা। এ ছাড়া, তারা দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকেও হত্যার হুমকি দেয়।

পুলিশ আরও জানায়, ভিডিওটি সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ার কারণে সংঘাত সৃষ্টির আশঙ্কায় শহরের কিছু এলাকায় কারফিউ জারি করা হয়েছে। সব পুলিশ সদস্যের ছুটি বাতিলের পাশাপাশি অতিরিক্ত পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। আর উদয়পুরে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করা হয়েছে।

সিনিয়র এক পুলিশ কর্মকর্তা এনডিটিভিকে জানান, এ ঘটনায় জড়িত কাউকে ছাড় না দিতে তারা সরকারের শীর্ষ পর্যায় থেকে নির্দেশ পেয়েছেন। এ ছাড়া, এ ভিডিও জনগণের মধ্যে উত্তেজনা তৈরি করতে পারে বলে তা সামাজিক মাধ্যমে প্রচার ও তা দেখা থেকে বিরত থাকতে জনগণের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

কিন্তু ভারতীয় প্রায় সব সংবাদমাধ্যমই ঘটনার ভিডিও প্রকাশ করছে। বিশেষভাবে বিভিন্ন টেলিভিশন চ্যানেলের খবরে ভিডিওটি নিয়মিত দেখানো হচ্ছে।

নুপূর শর্মাকে নিয়ে সামাজিক মাধ্যমে পোস্টের কারণে বিভিন্ন সংগঠন থেকে প্রাণনাশের হুমকি পেয়েছিলেন নিহত দর্জি। গত ১০ জুন তার বিরুদ্ধে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়। পরে পুলিশ তাকে আটক ও আদালতে উপস্থাপন করে। নিহত দর্জি আদালত থেকে জামিনও পায়।

এরপর গত ১৫ জুন নিহত দর্জি পুলিশকে জানায়, সে প্রাণনাশের হুমকি পেয়েছে।

তখন পুলিশের পক্ষ থেকে স্থানীয় সব রাজনৈতিক দল ও বিভিন্ন ধর্মাবলম্বীদের নেতৃবৃন্দদের থানায় ডেকে সভা করা হয়। সেখানেই সবার সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে ঘটনার মীমাংসা করা হয়।

তারপরও দর্জিকে হত্যার ঘটনায় ধর্মীয় নেতৃবৃন্দের কোন উস্কানি রয়েছে কিনা তাও খুঁজে বের করার চেষ্টা করছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

এ ছাড়া, ঘটনার তদন্তে পুলিশের পক্ষ থেকে উচ্চপর্যায়ের একটি তদন্ত দলও গঠন করা হয়েছে।

রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলট এ ঘটনাকে ‘দুঃখজনক’ ও ‘লজ্জাকর’ বলে অভিহিত করেছেন। এ ঘটনায় সম্পৃক্ত প্রত্যেকের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তিরও আশ্বাস দিয়েছেন। এ ছাড়া, বর্তমান পরিস্থিতিতে সেখানে শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে সব রাজনৈতিক দলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

এ ঘটনার প্রতিবাদে তীব্র প্রতিক্রিয়া জানান ভারতের কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধীও। তিনি এক টুইটে লিখেন, এই নৃশংস হত্যাকাণ্ডের কথা শুনে আমি পুরো স্তব্ধ হয়ে গিয়েছি। ধর্মের নামে বর্বরতা সহ্য করা হবে না। যারা এই আতঙ্ক তৈরির চেষ্টা করেছেন, তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আমাদের একসঙ্গে মিলেমিশে ঘৃণাকে হারাতে হবে। আমার সকলের কাছে আবেদন, দয়া করে শান্তি এবং সৌভ্রাতৃত্ব বজায় রাখুন।

(ঢাকাটাইমস/২৯জুন/আরআর)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আন্তর্জাতিক এর সর্বশেষ

স্ত্রীকে অন্য নারীর সঙ্গে তুলনা মানসিক নির্যাতনের শামিল: কেরালার আদালত

৯১১ এ ১২ হাজারবার কল, ফ্লোরিডার মহিলা গ্রেপ্তার

ইইউ ব্রেক্সিট চুক্তি লঙ্ঘন করেছে দাবি ব্রিটেনের

দিল্লির মুখ্যমন্ত্রীর বাড়িতে সিবিআইয়ের তল্লাশি

চীনের বেশ কয়েকটি প্রদেশে জাতীয় খরা সতর্কতা জারি

বন্ধুদের সঙ্গে পার্টিতে নাচগানের ভিডিও প্রকাশ, সমালোচনার মুখে ফিনল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী

ইউক্রেন যুদ্ধে পশ্চিমারা হারবে, আধিপত্যের অবসান হবে: হাঙ্গেরি

তাইওয়ান কেন চীনের হামলার আশঙ্কা করছে, কি ধরনের প্রস্তুতি নিচ্ছে

ইন্দোনেশিয়ায় জি-২০ সম্মেলনে যোগ দেবেন পুতিন ও শি জিনপিং

অস্ট্রিয়া, ইতালি, ফ্রান্সে ঝড়ের তাণ্ডবে তিন শিশুসহ অন্তত ১৩ মৃত্যু

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :