শেকলবন্দি রবিউলের পাশে প্রশাসন

ফরিদপুর প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ৩১ জুলাই ২০২১, ১৭:৫২

ফরিদপুরের বোয়ালমারীর মানসিক ভারসাম্য হারিয়ে রবিউল ইসলাম (৩৫) নামে এক যুবক দীর্ঘ ১৫ বছর ধরে মাটির গর্তে লোহার শিকলে বন্দি। এই খবরটি বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশের পর এগিয়ে এসেছে স্থানীয় প্রশাসন।

বোয়ালমারীর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ঝোটন চন্দ জানান, খবরটি জানার পরে তার (রবিউল ইসলাম) ও পরিবারের খোঁজ-খবর নেওয়া হয়েছে। পরিবারটি হতদরিদ্র, ভালো চিকিৎসার ব্যবস্থা করার মতো অবস্থা তাদের নেই।

তিনি বলেন, রবিউলের বাড়ি গিয়ে তার বাবার হাতে রবিউলের চিকিৎসা বাবদ প্রাথমিকভাবে ব্যক্তিগত উদ্যোগে পাঁচ হাজার টাকা এবং খাদ্যসামগ্রী দেওয়া হয়েছে। আমরা চেষ্টা করছি তার উন্নত চিকিৎসার ব্যবস্থা করতে।

এর আগে বোয়ালমারী পৌরসভার ছোলনা গ্রামের তরুণ সমাজসেবক মো. হেদায়েতুর রাফি সুমন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রবিউলকে নিয়ে প্রথম একটি পোস্ট দেন।

এছাড়াও ‘ক্ষুধার্তের আর্তচিৎকার’ নামে একটি ভার্চুয়াল গ্রুপের এডমিন মোহাম্মদ শামীম জানান, রবিউলের থাকার জন্য একটি ঘর এবং চিকিৎসার জন্য নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক তিনজন ২১ হাজার টাকা দিয়েছেন। মোহাম্মদ শামীম প্রধান এবং সুমন রাফি আগে থেকেই রবিউলের চিকিৎসা এবং তার থাকার জন্য একটি ভালো ঘরের ব্যবস্থা করার চেষ্টা করে যাচ্ছিলেন।

ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক অতুল সরকার এ বিষয়ে বলেন, ‘বিষয়টি অমানবিক। কোনোভাবে একটি মানুষকে শেকল দিয়ে বেঁধে রাখা যাবে না। আমরা প্রয়োজনে রবিউলকে উন্নত চিকিৎসার জন্য পাবনা মানসিক হাসপাতালে পাঠানো হবে।’

(ঢাকাটাইমস/৩১জুলাই/এসএ/কেএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :