যুক্তরাষ্ট্রে গাজার চেয়ে বেশি মানুষ অনাহারে মারা যায়: নেতানিয়াহু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ২২ মে ২০২৪, ১৮:০৪ | প্রকাশিত : ২২ মে ২০২৪, ১৭:৩৬
গাজায় খাদ্যের জন্য হাহাকার

গাজা উপত্যকায় ত্রাণ সরবরাহে বাধা দিয়ে ইসরায়েল ফিলিস্তিনিদের পদ্ধতিগতভাবে অভুক্ত রাখছে বলে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) অভিযোগকে প্রত্যাখ্যান করেছেন ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু। একই সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে গাজার চেয়ে বেশি মানুষ অনাহারে মারা গেছে বলে দাবি করেছেন তিনি।

সোমবার আইসিসি প্রসিকিউটর করিম খান ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু, প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইয়োভ গ্যালান্টের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করার সুপারিশ করেছেন। অন্যান্য অভিযোগের পাশাপাশি নেতানিয়াহু ও গ্যালান্টের বিরুদ্ধে যুদ্ধের হাতিয়ার হিসেবে গাজাবাসীকে অভুক্ত রাখার অভিযোগ করেন তিনি।

এক বিবৃতিতে করিম খানের দপ্তর বলেছে, একটি জনগোষ্ঠীকে অভুক্ত রেখে মেরে ফেলা মানবতাবিরোধী অপরাধ। তিনি বলেন, ইসরায়েল গাজায় খাদ্য গ্রহণের জন্য লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা মানুষের ওপর নির্বিচারে গুলিবর্ষণ করে ত্রাণ সরবরাহের কাজে ভয়াবহ প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করেছে।

করিম খানের এ অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে নেতানিয়াহু দাবি করেন, তিনি স্থলপথে গাজায় ত্রাণ ঢুকতে দেওয়ার পাশাপাশি আকাশ থেকেও সেখানে খাদ্য ফেলেছেন। গাজা উপত্যকায় খাদ্যদ্রব্যের দাম শতকরা ৮০ ভাগ কমে গেছে দাবি করে তিনি বলেন, বাজার পরিস্থিতি বলছে, গাজায় খাদ্য ঘাটতি নেই।

নেতানিয়াহু বলেন, ‘আমি যতদূর শুনেছি গাজার ২০ লাখ জনসংখ্যার মধ্যে মাত্র ২৩ জন বা ৩০ জন অনাহারে মারা গেছে। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রে ২০২২ সালে ২০ হাজার মানুষ অনাহারে মারা গিয়েছিল যা গাজার চেয়ে কয়েক গুণ বেশি।’

প্রসঙ্গত, গাজার হাসপাতালগুলোর বাইরে অনাহারে কত মানুষ মারা গেছে তার সঠিক হিসাব নেই। তবে গাজার স্বাস্থ্য বিভাগ বলেছে, খাদ্য ও খাবার পানির অভাবে গত ১ এপ্রিল থেকে এখন পর্যন্ত ২৮ শিশুসহ অন্তত ৩২ ফিলিস্তিনির মৃত্যু হয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/২২মে/এমআর)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আন্তর্জাতিক এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :