ফরিদগঞ্জে ছয় হাজার গাছ কাটা: প্রধান শিক্ষক গ্রেপ্তার

চাঁদপুর সংবাদদাতা, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০১ এপ্রিল ২০১৭, ১৭:৩৩

চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ উপজেলার শোল্লা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্বে পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) জমির ছয় হাজার গাছ কাটার ঘটনায় প্রধান শিক্ষক আরিফুর রহমানকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

গাছ কাটার ঘটনার সাত দিন পর শুক্রবার রাতে গ্রেপ্তার করা হয়।  
ফরিদগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহ আলম জানান, গত ২৩ মার্চ শোল্লা উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজ সংলগ্ন পাউবোর ৮১ শতাংশ জমির প্রায় ছয় হাজার মেহগনি গাছ কাটার ঘটনায় পরদিন ২৪ মার্চ অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করে মামলা করে পাউবো। পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করে নিশ্চিত হন স্কুলের প্রধান শিক্ষকের নির্দেশে এসব গাছ কাটা হয়। এ জন্য তাঁকে গ্রেফপ্তার করে আজ শনিবার আদালতে পাঠানো হয়েছে। আদালত তার জামিন না মঞ্জুর করে তাকে জেল হাজতে পাঠিয়ে দেয়।

এলাকাবাসী থেকে জানা গেছে, শোল্লা গ্রামের মৃত এমদাদুল ইসলাম চৌধুরীর ছেলে মো. নাছিরুল ইসলাম চৌধুরী পাউবো, চাঁদপুর পওর বিভাগ থেকে ২০১২ সালের ১২ এপ্রিল ৮১ শতাংশ ভূমি ২০১৯ সালের ১১ এপ্রিল পর্যন্ত বনায়নের শর্তে লিজ নেন। লিজের শর্তানুযায়ী স্থানীয় ভূমিহীন ও বনায়নে আগ্রহী ব্যক্তিদের নিয়ে ১৫ সদস্যের কমিটি করে বনায়ন করেন। কিন্তু একসময় তিনি বনায়নের উদ্দেশ্য পরিবর্তন করে ওই ভূমি বিদ্যালয়ের কাজে ব্যবহারের জন্য মতামত প্রকাশ করেন। কিন্তু কমিটির অন্য সদস্যরা এর বিরোধিতা করেন।

সম্প্রতি পানি উন্নয়ন বোর্ডের লিজগ্রহিতা ও বনায়ন কমিটির সভাপতি নাছিরুল ইসলাম চৌধুরী কমিটির সভায় উপস্থিত না থাকায় অন্য সদস্যরা তাকে কমিটি থেকে অব্যাহতি দেন। নিয়মানুযায়ী নতুন কমিটির রেজুলেশন কপি পাউবোর চাঁদপুর কার্যালয়ে জমা দেয়া হয়।

অভিযোগ করা হচ্ছে, এরপরই নাছিরুল ইসলাম বিদ্যালয়ের কিছু শিক্ষার্থী, কয়েকজন শিক্ষক ও বহিরগত শতাধিক লোক নিয়ে কেটে ফেলেন লাখ লাখ টাকা বিনিয়োগ করা মূল্যবান এসব গাছ।

২৩ মার্চের ওই ঘটনায় কাটা পড়ে শোল্লা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের পেছনে ৮১ শতাংশ বনায়নের প্রায় ৬ হাজার মেহগুনি গাছ।

(ঢাকাটাইমস/১এপ্রিল/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত