জাল দলিল করায় শিক্ষকের যাবজ্জীবন, সাতজনের কারাদণ্ড

ফরিদপুর প্রতিবেদক
 | প্রকাশিত : ২৯ জানুয়ারি ২০১৯, ১৫:১১

ফরিদপুরের নগরকান্দা উপজেলার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসে জাল দলিল করায় একজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। এছাড়া সাতজনের ১০ বছর করে কারাদণ্ডসহ অর্থদণ্ড করেছে আদালত।

ফরিদপুরের স্পেশাল জজ আদালতের বিচারক মো. মতিয়ার রহমান মঙ্গলবার দুপুরে এই রায় ঘোষণা করেন।

যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তির নাম গিয়াসউদ্দিন মোল্লা। তিনি শ্রীরামদিয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক। এছাড়া তার ৫০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড, অনাদায়ে আরও ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়।

১০ বছর করে দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- নগরকান্দা সাব রেজিস্ট্রি অফিসের পিয়ন মো. আবু বক্কার, নকলনবিশ এসমোতারা বেগম, সুজিত কুমার বিশ্বাস, দেলোয়ার  হোসেন, উষা বিশ্বাস, আনজু আক্তার ও মোহাম্মদ আলী। কারাদণ্ডের পাশাপাশি তাদের ২০ হাজার টাকা করে অর্থদণ্ড, অনাদায়ে আরও তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেয়া হয়।

রায় ঘোষণার সময় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত গিয়াসউদ্দিন মোল্লা এবং ১০ বছরের সাজাপ্রাপ্ত এসমোতারা বেগম ছাড়া বাকি সবাই উপস্থিত ছিলেন।

ফরিদপুরে জজ কোর্টের দুদকের পিপি মজিবুর রহমান জানান, ফরিদপুরের নগরকান্দার সাব-রেজিস্ট্রি অফিসে জাল দলিল করায় আদালত প্যানাল কোড ১৮৬০ এর ৪৬৭ ধারায় দোষী সাব্যস্ত করে একজনকে যাবজ্জীবন ও সাতজনের ১০ বছর কারাদ-সহ অর্থদ- প্রদানের আদেশ দেয়।

আদালত সূত্র জানায়, জাল দলিলের অভিযোগ তুলে ২০১৩ সালের ২ মার্চ শেখ আব্দুল মোতালেব বাদী হয়ে নগরকান্দা থানায় একটি মামলা করেন। মামলাটিতে নয়জনকে আসামি করা হয়। পরবর্তীতে দুদকের ফরিদপুর অফিস তদন্ত করে আদালতে প্রতিবেদন জমা দেন।

ঢাকা টাইমস/২৯জানুয়ারি/প্রতিনিধি/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :