ভুয়া রোগীর নামে হাসপাতাল থেকে ওষুধ নিয়ে বাজারে বিক্রি, নারী আটক

চাঁদপুর প্রতিনিধি, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ০৬ মার্চ ২০২৪, ২৩:১২
(বামে) হাসপাতাল থেকে উত্তোলন করা ওষুধ (ডানে) আটক নারী।

চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নামে বেনামে রোগীদের নাম দিয়ে টিকিট কেটে ওষুধ উত্তোলন করে বিক্রিসহ চিকিৎসকদের কক্ষে প্রবেশ করে আপত্তিকর আচরণ করায় নাজমা বেগম (৪৫) নামে এক নারীকে আটক করা হয়েছে। পরে ভ্রাম্যমান আদালতে হাজির করার পর আদালত তার মানসিক দিক বিবেচনা করে শাস্তি ছাড়াই মুক্তি দিয়েছে।

বুধবার দুপুরে হাসপাতালের ২০৭ নম্বর কক্ষ থেকে আনসার সদস্যরা তাকে আটক করে চাঁদপুর সদর মডেল থানার মাধ্যমে ভ্রাম্যমাণ আদালতে সোপর্দ করেছে।

ওই নারী শহরের চেয়ারম্যানঘাট এলাকার বাসিন্দা। এক সময় তিনি আইনজীবীর সহকারী হিসেবে কাজ করতেন। বর্তমানে তিনি সদর মডেল থানা, সাব রেজিস্ট্রি অফিস সরকারি হাসপাতালে প্রতারণা করে বেড়ান বলে অভিযোগ উঠেছে।

চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালের আনসার (পিসি) সুরুজ্জামান জামান বলেন, হাসপাতালের ২১৫ নম্বর কক্ষে মেডিকেল অফিসার ডা. আনজুম আরা ফেন্সি ২০৭ নম্বর কক্ষে মেডিকেল অফিসার ডা. নূরুন্নাহার রোগীদের চিকিৎসাসেবা দিচ্ছেন। ওই সময় রোগীদের সিরিয়াল ভঙ্গ করে নাজমা বেগম ডা. আনজুম আরা ফেন্সি ডা. নূরুন্নাহারের কক্ষে প্রবেশ করে নির্দিষ্ট কয়েকটি ঔষধের নাম লিখে দেওয়ার জন্য চিকিৎসকদের চাপ প্রয়োগ করেন। চিকিৎসক ঔষধের নাম লিখতে রাজি না হওয়ায় নাজমা বেগম চিকিৎসকের সঙ্গে অশালীন আচরণ করে। পরে হাসপাতালের স্টাফ আনসার সদস্যরা এগিয়ে আসলে তাদেরকেও তিনি গালমন্দ করেন। এরপর তাকে চাঁদপুর সদর মডেল থানা পুলিশ আনসারদের সহায়তায় আটক করা হয়। সময় ওই নারীর কাছ থেকে নাজমা, সালমা, সালেহাসহ বিভিন্ন নামে হাসপাতালের একাধিক টিকিট সরকারি ঔষধ উদ্ধার করা হয়েছে।

হাসপাতালের কর্মরত একাধিক কর্মচারী জানান, বিভিন্ন সময় হাসপাতালে চিকিৎসকদের কক্ষে প্রবেশ করে কখনও নাজমা, আবার কখনো সালমাসহ বিভিন্ন পরিচয় দেয়। হাসপাতাল থেকে বিভিন্ন নাম ব্যবহার করে টিকিট সংগ্রহ করে সরকারি ঔষধ অন্যত্র নিয়ে বিক্রি করেন। আবার বিভিন্ন স্থান থেকে আসা রোগীদের কাছ থেকে কৌশলে টাকা, পয়সা মোবাইল ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগ আছে।

চাঁদপুর জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. জাকারিয়া হোসেন জানান, ভ্রাম্যমাণ আদালতে নাজমা বেগম নামে ওই নারীকে উপস্থিত করার পর তার মানসিক সমস্যা আছে বলে মনে হয়েছে। তাছাড়া হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগের কোনো ভিডিও ফুটেজ দেখাতে পারেনি। যে কারণে কোনো আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করা সম্ভব হয়নি। তবে পরবর্তী সময়ে ওই নারী হাসপাতালের কার্যক্রমে কোনো ধরনের বাধা প্রদান করে তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে বলা হয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/০৬মার্চ/প্রতিনিধি/পিএস)

সংবাদটি শেয়ার করুন

সারাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সারাদেশ এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :