করোনাযুদ্ধে জয়ী হতে বাড়িতে থাকুন: মার্কিন রাষ্ট্রদূত

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৬ মার্চ ২০২০, ১৭:২৭

৪৯ বছর আগে যেভাবে বাংলাদেশের মানুষ স্বাধীনতা চিনিয়ে এনেছিল ঠিক তেমনি করে কোভিড-১৯ বা করোনাভাইরাস মোকাবিলায় দেশের সকল মানুষকে নিজেদের সুরক্ষায় এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন ঢাকায় নিযুক্ত যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত রবার্ট আর্ল মিলার।

বৃহস্পতিবার এক ভিডিও বার্তায় বাংলাদেশের ৪৯মত বিজয় দিবসের শুভেচ্ছা বিনিময়কালে রাষ্ট্রদূত এই আহ্বান করেন।

রাষ্ট্রদূত রবার্ট আর্ল মিলার বলেন, `৪৯ বছর আগে একবার যেমন হয়েছিল তেমনি আবারও বাংলাদেশ একটি নতুন পরীক্ষার সম্মুখীন। আসলে আমরা সবাই। মুক্তিযুদ্ধের সময় বাংলাদেশিরা বিশ্বকে সাহস, শৃঙ্খলা ও আত্মত্যাগের মহিমা শিখিয়েছে। এখন পুরো বিশ্ব যখন কোভিড-১৯ নামে একটি নতুন হুমকির মুখোমুখি তখন আমাদের সবাইকে এদেশের অনুসরণে সেই একই গুণাবলী নিয়ে এই রোগের বিরুদ্ধে লড়াই করতে হবে। এবং নিজেদের সুরক্ষায় এগিয়ে আসতে হবে।’

সবার সম্মিলিত প্রচেষ্টায় এই যুদ্ধ কাটিয়ে উঠা সম্ভব জানিয়ে রাষ্ট্রদূত বলেন, `আমরা সবাই এই যুদ্ধে শামিল হয়েছি। আমরা একসঙ্গে এই সংকট কাটিয়ে উঠব। এই সংকট পার করে আমরা আবার পেছনে ফিরে তাকাব হয়তো এখন থেকে ৪৯ বছর আগে-তখন আমরা বলব, যখন পরিস্থিতি সবচেয়ে খারাপ হয় তখন আমরা আমাদের সেরাটা দিয়ে চেষ্টা করি।’

কোভিড-১৯ মোকাবিলায় কয়েকটি সহজ ধাপ অনুসরণের পাশাপাশি সবাইকে এ সময় বাড়িতে থাকার পরামর্শ দিয়েছেন মিলার।

বাংলাদেশিদের স্বাধীনতা দিবসের অভিবাধন জানান রাষ্ট্রদূত। বলেন, `যুক্তরাষ্ট্রের জনগণের পক্ষ থেকে আমি বাংলাদেশের জনগণকে দেশের স্বাধীনতার ৪৯তম বার্ষিকীতে অভিবাদন জানাই। আমি আন্তরিক শুভেচ্ছা জ্ঞাপন করছি যখন আপনারা ২০২১ সালের স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীর প্রাক্কালে জাতির জনক শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন করছেন।‘

৪৯ বছরে বাংলাদেশ অনেক এগিয়ে গেছে বলেও মন্তব্য করেন মিলার। রাষ্ট্রদূত বলেন, `বিগত ৪৯ বছরে ঈর্ষণীয় উন্নযন ধারায় অগ্রসর হয়ে বিধ্বংসী যুদ্ধের মাধ্যমে জন্ম নেওয়া স্বাধীন দেশ হিসেবে বাংলাদেশ এখন বিকাশমান কৃষি, অর্থনৈতিক ও শিল্পোন্নয়নের কেন্দ্রভূমি হয়ে ওঠেছে। এই রূপান্তরকালে অন্যতম অংশীদার ছিল যুক্তরাষ্ট্র এবং আমি গর্বিত যে, আমাদের অর্থনীতি উভয় দেশের মনিুষের সমৃদ্ধি এনেছে।‘

যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের ভবিষ্যৎ অর্জনের দিকে তাকিয়ে রয়েছে জানিয়ে রাষ্ট্রদূত আগামী বছরগুলোতে দেশটির সহযোগিতা বাংলাদেশের জন্য অব্যাহত থাকবে বলেও জানান।

ভিডিও বার্তায় রাষ্ট্রদূত রোহিঙ্গা শরণার্থীদের আশ্রয়ে বাংলাদেশের প্রশংসা করে বলেন, `দশ লক্ষেরও বেশি রোহিঙ্গা শরণার্থীর আশ্রয়দাতা হিসাবে অব্যাহত উদারতার জন্যও আমি বাংলাদেশের প্রশংসা করি। শীর্ষ আন্তর্জাতিক দাতা সংস্থা হিসাবে এই সংকট মোকাবিলায় আমরা অব্যাহতভাবে আপনাদের পাশে থাকব।’

(ঢাকাটাইমস/২৬মার্চ/এনআই/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :