ভালুকায় আমন ধানে চিটা, কৃষকের মাথায় হাত

ভালুকা(ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি
 | প্রকাশিত : ১১ নভেম্বর ২০১৮, ১৯:১৭

দিশেহারা হয়ে পড়েছেন ময়মনসিংহের ভালুকার কৃষকরা। এই উপজেলার কয়েকটি এলাকায় আমন ধানে ব্যাপক হারে পোকার উপদ্রব দেখা দিয়েছে। সঙ্গে বের হচ্ছে চিটা। তাই ফসল না পাওয়ার আশঙ্কায় আছেন এসব এলাকার কৃষকরা।

উপজেলার বাঁওয়া গ্রামের কৃষক সিরাজ মিয়া জানান, তার ক্ষেতের বেশিরভাগ ধান বের হওয়ার পর মরে চিটা হয়ে যাচ্ছে। তিন ধরণের কীটনাশক কয়েকবার দেয়া হলেও কোনো প্রতিকার মেলেনি।

একই এলাকার জুলহাস ঢালী জানান, তার চার কাঠা জমি পোকায় ও ছয় কাঠা জমি ইদুঁের আক্রান্ত। উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তার পরামর্শে কয়েকবার কীটনাশক ও বিষটোপ দিয়েও প্রতিকার মিলেনি। তার ছয় কাঠা জমির ধান ইদুঁরে নষ্ট করেছে।

আরেক কৃষক রব্বানী জানান, তিনি চার কাঠা জমিতে ৫১ জাতের ব্রি-ধান চাষ করেছেন। তার ক্ষেতেও পোকার আক্রমণ দেখা দিয়েছে। কয়েকবার কীটনাশক দেয়া হয়েছে কিন্তু প্রতিকার পাননি।

উপজেলার দক্ষিণ হবিরবাড়ী কড়ইতলা গ্রামের কয়েকজন কৃষক জানান, তাদের আমন ক্ষেতে ধানের ছড়া মরে কালো চিটা বের হয়েছে। কীটনাশক দেয়া হলেও প্রতিকার পাননি।

তাদের অভিযোগ, কৃষি বিভাগের পরামর্শ না পাওয়ায় বারবার ঔষধ দিয়েও সুফল মিলছে না। এলাকার কোনো কৃষি কর্মকর্তা ফসল দেখতে আসেন না বলেও জানান।

মাহমুদপুর ব্লকের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা হাবিব উল্লাহ বাহার জানান, তাপমাত্রা জনিত কারণে ব্রি-৫১ ধানে চিটা জনিত সমস্যা দেখা দিয়েছে। এটি কোনো বালাই নয়। ব্রি-ধান ৪৯ জাতের ফলন ভাল হয়েছে। পোকা ও ইদুঁর দমনে কৃষকদের কীটনাশক ও বিষটোপ ব্যবহারের পরামর্শ দিয়ে আমরা সার্বক্ষণিক মাঠে কাজ করে যাচ্ছি।’       

ঢাকা টাইমস/১১ নভেম্বর/প্রতিনিধি/এএইচ

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :