আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বাশারের একমাত্র শিকার লারা

ক্রীড়া ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২২ মে ২০২০, ১৭:৫৫

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক হাবিবুল বাশার সুমন ব্যাটসম্যান হিসাবেই পরিচিত ছিলেন। তবে, ঘরোয়া ক্রিকেটে প্রায়ই বোলিং করতেন তিনি। ২০০৭ সালের বিশ্বকাপে বাশারের নেতৃত্বে ভারতকে হারিয়েছিল বাংলাদেশ। বাশার যখন খেলতেন তখন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বাংলাদেশি ব্যাটসম্যানদের খুব একটা সেঞ্চুরি করতে দেখা যেত না। তবে, বাশার হাফ সেঞ্চুরি করতেন খুব। টেস্ট ও ওয়ানডে মিলিয়ে তার ৩৪টি হাফ সেঞ্চুরি রয়েছে। এজন্য তার নামই হয়ে গিয়েছিল ‘মিস্টার ফিফটি’।

ব্যাট হাতে ঝলক দেখানো হাবিবুল বাশার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে একটিমাত্র উইকেট শিকার করেছেন। তার এই একমাত্র উইকেটটি হলো ব্রায়ান লারার উইকেট। লারাকে আউট করা ছিল তখনকার বোলারদের কাছে স্বপ্ন। আর সেই কঠিন কাজটি করেছিলেন বাশার।

ঘটনাটি ঢাকার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে। সময়কাল, ১৯৯৯ সালের ৯ অক্টোবর। বাংলাদেশ আর ওয়েস্ট ইন্ডিজের ওয়ানডে সিরিজের সেটা ছিল দ্বিতীয় ম্যাচ। প্রথম ম্যাচে রান না পাওয়া (২ রানে আউট) লারা দ্বিতীয় ম্যাচে ছিলেন বিধ্বংসী।

পাওয়ার প্লে শেষ হওয়ার আগেই সেঞ্চুরি পূরণ করা লারার রান তখন ১১৭ (৬১ বলে ১৮ চার ও ৪ ছক্কায়)। অধিনায়ক আমিনুল ইসলাম বুলবুল দিশেহারা। যেই বোলিংয়ে আসছেন, লারার হাতে বেদম মার খাচ্ছেন।

বিশেষজ্ঞ বোলারদের খেই হারিয়ে ফেলতে দেখে অধিনায়ক বুলবুল অনেকটা বাধ্য হয়েই অনিয়মিত বোলার হাবিবুল বাশার সুমনকে ডাকেন। আর সুমন বোলিংয়ে এসে প্রথম বলেই করেন বাজিমাত। তার বলে বড় শট খেলতে গিয়ে বোল্ড হন লারা।

ওই অভাবনীয় সাফল্যটি কীভাবে ধরা দিয়েছিল? বৃহস্পতিবার ক্রীড়া সাংবাদিক নোমান মোহাম্মদের ইউটিউব লাইভে সে মজার গল্পই শোনান বাশার। তিনি বলেন, ‘ওই উইকেটটি নিয়ে দুটি ঘটনা আছে। দুটিই আমি শেয়ার করছি। প্রথম হলো, যতদূর মনে আছে, লারা আগের ম্যাচে আউট হয়েছিলেন অল্প রানে। ওই দিন লারা নামার সময় দর্শকরা তাকে দুয়োধ্বনি দিয়েছিলেন। লারা ‘ভুয়া’ বলে চেচিয়েছিলেন। তাতে লারা তেঁতে গিয়েছিলেন হয়তো। ৪৫ বলে মনে হয় হান্ড্রেড করেছিলেন।’

(ঢাকাটাইমস/২২ মে/এসইউএল)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত