প্রধানমন্ত্রীর আড়াই হাজার টাকা পেলেন কোটিপতি কৃষকলীগ নেতা

ব্যুরো প্রধান,রাজশাহী
| আপডেট : ২২ মে ২০২০, ২০:১৯ | প্রকাশিত : ২২ মে ২০২০, ২০:১৮

করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে হতদরিদ্রদের ঈদ উপহার হিসেবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যে আড়াই হাজার টাকা করে দিয়েছেন সেই টাকা পেয়েছেন রাজশাহী মহানগর কৃষকলীগের এক নেতা। এই নেতা শহরের একজন কোটিপতি ব্যক্তি হিসেবে পরিচিত।

জানাজানি হওয়ার পরে তিনি এখন বলছেন, ঈদের পরে এই টাকা তুলে তিনি প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে ফেরত পাঠাবেন।

এই নেতার নাম মুর্শিদ কামাল রানা। তার বাড়ি রাজশাহী নগরীর রাজপাড়া থানার লক্ষ্মীপুর এলাকায়। তিনি রাজশাহী মহানগর কৃষক লীগের সহসভাপতি।

স্থানীয় লোকজন এই নেতার অবস্থা সম্পর্কে জানিয়েছেন, লক্ষ্মীপুর বাজারে প্রায় ১০ কাঠা জমির ওপর ‘সরকার প্লাজা’ নামে তার একটি ভবন রয়েছে। সেই ভবনের মার্কেট থেকেই তিনি মাসে লাখ টাকা ভাড়া ওঠান। নিজে ঠিকাদারি ব্যবসা করেন।

রাজশাহী মহানগর কৃষক লীগের সভাপতি রহমতুল্লাহ সেলিম বলেন, মুর্শিদ কামাল রানা তার কমিটির পাঁচ নম্বর সহসভাপতি। তিনি একজন সচ্ছল মানুষ।

সভাপতি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পাওয়ার বিষয়টি তিনিও জানেন। তবে কীভাবে তার নাম এই তালিকায় গেল, তা বোঝা যাচ্ছে না। এখন তো তালিকায় নাম দেওয়ার হিড়িক পড়ে গেছে।

তিনি বলেন, তার কাছে মুর্শিদ কামাল বলেছেন, এই টাকা তিনি নিবেন না। টাকা তুলে গরিব মানুষের মধ্যে বিতরণ করে দেবেন।

মুঠোফোনে প্রধানমন্ত্রীর আড়াই হাজার টাকার খুদে বার্তা পাওয়ার ব্যাপারে জানতে চাইলে মুর্শিদ কামাল রানা বলেন, তার মুঠোফোনে চার দিন আগে এই বার্তাটি ঢুকেছে। কিন্তু কীভাবে তার নাম তালিকায় গেল তিনি বুঝতে পারছেন না। তিনি তার নাম কাউকে দিতে বলেননি।

সচ্ছল মানুষ হিসেবে এই টাকা কী করবেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, তিনি টাকা তোলার সময় পাননি। ঈদের পর তিনি টাকা তুলে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণতহবিলে ফেরত পাঠাবেন।

(ঢাকাটাইমস/২২মে/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :