দেবিদ্বারে তুচ্ছ ঘটনায় যুবককে কুপিয়েছেন স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা

দেবিদ্বার (কুমিল্লা) প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১১ আগস্ট ২০২২, ২৩:২২

কুমিল্লার দেবিদ্বারে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে কুমিল্লা উত্তর জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক লিটন সরকারের নেতৃত্বে মো. সাগর (২২) নামে এক যুবককে কুপিয়ে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বৃহস্পতিবার রাত ৮টায় চান্দিনা বাস স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে। আহত সাগরকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আহত সাগরের চাচা হৃদয় মিয়া চান্দিনা বাজারে কনফেকশনারী দোকানে ব্যবসা করেন। বৃহস্পতিবার বিকালে হৃদয়ের দোকানের পাশে একটি ছেলে ও একটি মেয়েকে ঘুরাঘুরি করতে দেখে। ওই সময় হৃদয় তাদের কিছু লাগবে কি না জিজ্ঞাসা করলে, উত্তরে তারা কিছু লাগবে না বলে জানান। তখন হৃদয় তাদের ওই খানে অযথা ঘুরাঘুরি করতে নিষেধ করলে তারা কুমিল্লা উত্তর জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক লিটন সরকারের ভাগিনা অনিককে ফোন করে নিয়ে যায়।

অনিক গিয়ে দোকানের মধ্যেই হৃদয়কে মারধর করে। সন্ধ্যায় চান্দিনা বাস স্টেশনে অনিকের সঙ্গে মো. সাগরের দেখা হয়। ওই সময় সাগর তার চাচাকে মারধরের কারণ জানতে চাইলে দুজনের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। খবর পেয়ে কুমিল্লা উত্তর জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক লিটন সরকার ও তার দলবল নিয়ে সাগরের উপর হামলা চালিয়ে তাকে কুপিয়ে আহত করে। পরে স্থানীয়রা রক্তাক্ত অবস্থায় সাগরকে উদ্ধার করে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। আহত সাগর দেবিদ্বার উপজেলার বাগুর গ্রামের মো. রফিকুল ইসলামের ছেলে।

লিটন সরকার ছাড়াও হামলায় আরও অংশ নেন দেবিদ্বার উপজেলার বাগুর গ্রামের মৃত আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে মো. কাউছার আহমেদ, জাফরাবাদ গ্রামের মৃত মিন্টু শীলের ছেলে যাদব শীল, বাদশা মিয়ার ছেলে মো. রবিউল্লাহ, জাফরাবাদ মনিপুরের এলাহী বক্সের ছেলে মো. সোহাগ মিয়া, বাগুর গ্রামের এইচডু মিয়ার ছেলে মো. শামীম, ভরাট গ্রামের মো. হাবিবুর রহমান ড্রাইভারের ছেলে মো. আরিফ, খাদঘর গ্রামের মৃত মোসলে উদ্দিনের ছেলে মহসিন উদ্দিন পলাশসহ আরো অজ্ঞাত ১০-১৫ জন।

এ বিষয়ে চান্দিনা থানায় একটি মামলার প্রস্তুতি চলছে।

আহত সাগরের বাবা রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘আমার ছেলেকে লিটন সরকারের নেতৃত্বে মৃত্যু নিশ্চিত করার উদ্দেশ্যে কুপিয়ে রক্তাক্ত যখম করা হয়েছে।’

হামলার বিষয়ে কুমিল্লা উত্তর জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক লিটন সরকারের ফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

চান্দিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আরিফুর রহমান বলেন, ‘ঘটনাটি শুনেছি। তারা চান্দিনায় এ ঘটনা ঘটায়। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেবো।’

(ঢাকাটাইমস/১১আগস্ট/ইএস/কেএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :