মিলান কনস্যুলেটে মাতৃভাষা ও শহীদ দিবস পালন

ইউরোপ ব্যুরো, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৫:১৬

ইতালিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ও মহান শহীদ দিবস পালন করেছে মিলান কনস্যুলেট। কনস্যুলেট প্রাঙ্গণে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত করার মধ্য দিয়ে দিবসের কর্মসূচি শুরু হয়।

আমার ভাষা আমার অহংকার এই স্লোগান নিয়ে বিভিন্ন দেশের কূটনীতিকদের উপস্থিতিতে আলোচনা সভা আয়োজন করে কনস্যুলেট হলরুমে।

মিলান কনস্যুলেটের কনসাল জেনারেল এম জে এইচ জাবেদের সার্বিক তত্ত্বাবধানে উপস্থিত ছিলেন- কনসাল সাব্বির আহমেদ, এস এম তাজুল ইসলামসহ কনস্যুলেট অফিসের সকল কর্মকর্তারা।

প্রথম পর্বে সকাল ৯টায় কনসাল জেনারেলের নেতৃত্বে পদযাত্রার মাধ্যমে কনস্যুলেট প্রাঙ্গণে স্থাপিত শহিদ মিনারে পুষ্পার্ঘ অর্পণপূর্বক সকল কর্মকর্তা-কর্মচারী ভাষা শহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন।

পরে কনস্যুলেটের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীরা একুশে ফেব্রুয়ারির ভাষা আন্দোলনে মহান শহীদদের স্মৃতির উদ্দেশ্যে এক মিনিট নীরবতা পালন করেন। দিবসটি উপলক্ষে মহামান্য রাষ্ট্রপতি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্র মন্ত্রী, পররাষ্ট্র মন্ত্রী ও ইউনেস্কোর মহাপরিচালক কর্তৃক প্রদত্ত বিশেষ বাণী পাঠ করা হয়। শহীদদের রুহের মাগফেরাত ও দেশের অব্যাহত শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করে মোনাজাতের মাধ্যমে প্রথম পর্বের সমাপ্তি ঘটে। উল্লেখ্য, সম্মিলিতভাবে দিবসটি উদযাপনের লক্ষে ২০ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যা ৭.০১ মিনিটে (বাংলাদেশ সময় ২১ ফেব্রুয়ারি ১২.০১ মিনিটে) ইতালির মিলানের Piazza Gae Aulenti, 3 চত্বরে স্থাপিত অস্থায়ী শহিদ মিনারে কনসাল জেনারেলের নেতৃত্বে মিলানের বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ এবং বিপুল সংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি ফুল দিয়ে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। এ সময় কনসাল জেনারেল তাঁর সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে সকলের সামনে দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরেন এবং বিদেশের মাটিতে মাতৃভাষা ও নিজস্ব সংস্কৃতি সংরক্ষণের জন্য প্রবাসীদের প্রচেষ্টা ও তৎপরতার ভূয়সী প্রশংসা করেন।

দ্বিতীয় পর্বে ২১ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৫টায় জনকূটনীতির অংশ হিসেবে আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে মাতৃভাষার বহুমাত্রিকতার প্রভাব তুলে ধরতে Mother Tongue and 4th Industrial Revoluition (1710-1840) প্রতিপাদ্যে একটি প্রাণবন্ত আলোচনা সভা আয়োজন করা হয়। কনসাল জেনারেল এম জে এইচ জাবেদের সঞ্চালনায় মিলানস্থ বিভিন্ন দেশের কনস্যুলেট-এ কর্মরত কূটনৈতিকগণের মধ্যে মিলানে নিযুক্ত ক্রোয়োশিয়ার কনসাল জেনারেল জনাব স্টেফান রিবিচ, মিলানে নিযুক্ত মিশরের কনসাল জেনারেল মানাল আবদেলদাইম, লা স্টাম্পা এসতেরার সাংবাদিক ডেভিড রোসি এবং লা গেজেটা ডি মিলানের সাংবাদিক আগস্টিনো মারোতা আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে তাঁদের বক্তব্য প্রদান করেন এবং তাঁদের নিজ নিজ বক্তব্যে উল্লেখ করেন যে, উন্নত সমাজ ব্যবস্থা বিনির্মাণে এবং প্রযুক্তির সর্বোচ্চ সদ্বব্যবহারের জন্য মাতৃভাষার বিকাশ সাধনের কোন বিকল্প নেই। দেশ ও ভাষাভাষীর পক্ষ থেকে দিবসটিতে বাংলাদেশি জনগণের প্রতি শুভেচ্ছা জ্ঞাপন ও ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা প্রকাশ করেন। তারা আরও উল্লেখ করেন যে, একাধিক ভাষায় ও সংস্কৃতিতে পারদর্শীতা ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় সহযোগিতা করবে। অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনাকারী ও প্রধান বক্তা এম জে এইচ জাবেদ তাঁর বক্তব্যে উল্লেখ করেন যে, ভাষা শহীদদের সর্বোচ্চ আত্মত্যাগের বিনিময়ে ১৯৫২ সালে মাতৃভাষার সম্মান সুরক্ষিত হয়েছিল, যার পথ ধরে বঙ্গবন্ধুর সৃজনশীল নেতৃত্বে বাংলাদেশ অর্জন করে পরম কাঙ্ক্ষিত স্বাধীনতা।

(ঢাকা টাইমস/২৪ফেব্রুয়ারি/প্রতিনিধি/এসএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

প্রবাসের খবর বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :