কাশ্মীর ইস্যু: যুদ্ধের হুঁশিয়ারি পাকিস্তানের প্রেসিডেন্টের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ১৪ আগস্ট ২০১৯, ১৪:১৭

৩৭০ ধারা জম্মু-কাশ্মীর থেকে তুলে নেওয়ার পর থেকে ভারত পাকিস্তানের মধ্যে টানাপড়েনের মাত্রা বেড়েছে। একের পর এক হুমকি দিচ্ছে দুই দেশ৷ এমন অবস্থার মধ্যে ৩৭০ ধারা বিলোপর নিয়ে যুদ্ধের হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট আরিফ আলভি৷ তিনি বলেন, ‘আমরা যুদ্ধ চাই না, কিন্তু ভারত যুদ্ধ করতে চাইলে তাদের কাছে যুদ্ধ করা ছাড়া আর কোনও রাস্তা থাকবে না’৷

পাকিস্তানের স্বাধীনতা দিবসে আরিফ বলেন, সমগ্র দেশ দেখছে পাকিস্তান কাশ্মীরবাসীর সঙ্গে রয়েছে এবং সবসময় তাদের সঙ্গে থাকতে প্রস্তুত৷ কাশ্মীরবাসীকে সাহায্য থেকে তারা পিছু হটবেন না এবং এই বিষয় নিয়ে পাকিস্তান আন্তর্জাতিক অঙ্গনে যাবেন বলেও জানান আলভি৷ তিনি বলেন, ‘নিয়ম নীতি ভেঙে জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপ করেছে ভারত’৷

এদিকে, যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত পাকিস্তানের রাষ্ট্রদূত আসাদ মাজিদ খান আশংকা করছেন, কাশ্মীরের পরিস্থিতির অবনতি হতে পারে। সেক্ষেত্রে তার দেশ আফগান সীমান্ত থেকে সেনা সরিয়ে কাশ্মীর সীমান্তে মোতায়েন করবে। আর তেমন হলে তালেবান ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে শান্তি আলোচনা ভেস্তে যেতে পারে বলে আশংকা করা হচ্ছে। যেখানে দু’পক্ষের আলোচনা শেষ পর্যায়ে রয়েছে।

নিউইয়র্ক টাইমসকে মাজিদ খান এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, কাশ্মীর ও আফগানিস্তান দুটি আলাদা ইস্যু৷ তিনি আদৌ এ দুটোকে এক করতে চান না। তার দেশ যুক্তরাষ্ট্র ও তালেবানের আলোচনায় সফল হোক চায়৷ তা সত্ত্বেও, অধিকৃত কাশ্মীরে ভারতীয় দমন-পীড়ন শুরু হয়েছে।

কাশ্মীর থেকে স্পেশাল স্টেটাস তুলে নেওয়ার পর পাকিস্তানের জাতীয় নিরাপত্তা কমিটি ১৪ আগস্ট দেশের স্বাধীনতা দিবসে ‘কাশ্মীর সংহতি দিবস’ পালনের সিদ্ধান্ত নেয়। এছাড়া ১৫ আগস্ট ভারতের স্বাধীনতা দিবসকে ‘কালো দিবস’ হিসেবে পালন করার সিদ্ধান্তও নিয়েছে পাকিস্তান।

ঢাকা টাইমস/১৪আগস্ট/একে

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :