পুত্রবধূকে একি বললেন সাবেক এমপি হিরু!

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৭ নভেম্বর ২০১৯, ২০:৫৮

তিনি বরগুনা-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য। জমিজমার বিরোধ নিয়ে ইতিমধ্যে ছেলেকে জেলে পাঠিয়েছেন। এবার পুত্রবধূকে জেলে পাঠানোর হুমকি দিয়ে বলেছেন নতুন স্বামী জোগাড় করে নিতে।

ছেলের বউয়ের সঙ্গে সাবেক সাংসদ গোলাম সারওয়ার হিরুর এই কথোপকথন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে ইতিমধ্যে।

শ্বশুরের কাছ থেকে এ ধরনের হুমকি পেয়ে পুত্রবধূটি পাথরঘাটা থানায় গিয়ে মৌখিক অভিযোগ জানিয়েছেন।

তবে গোলাম সারওয়ার হিরু দাবি করছেন, তিনি কোনো হুমকি দেননি। অডিও ক্লিপটি তার নয়।

পারিবারিক জমিসংক্রান্ত মামলায় বুধবার ছেলে গোলাম মোর্শেদ রানাকে জেলে পাঠিয়েছেন সাবেক সংসদ সদস্য।

ভাইরাল হওয়া অডিও থেকে বোঝা যায়, রানার স্ত্রী বেবী তার শ্বশুরকে ফোন করে ছেলের বাড়িতে যাওয়ার অনুরোধ করেন। এ সময় পুত্রবধূকে নানাভাবে ভয়ভীতি ও হুমকি দেন হিরু।

অডিও ক্লিপে শোনা যায়, হিরু তার পুত্রবধূকে বাবার বাড়ি ময়মনসিংহে ফিরে যেতে বলেন। যদি না যান তাহলে স্বামীর সঙ্গে জেলে চালান করে দেওয়ার হুমকি দেন। এ সময় তিনি আরও বলেন, ‘বেশি না বুঝে নতুন স্বামী জোগাড় করো।’

প্রভাবশালী শ্বশুরের হুমকি পেয়ে শঙ্কার মধ্যে আছেন বেবী। তিনি বলেন, দআমার স্বামীকে জেলহাজতে পাঠিয়েছেন তিনি। এখন আমাকে নানাভাবে হুমকি দিচ্ছেন। এখানে আমার তেমন কোনো আত্মীয়স্বজন নেই। আমি শঙ্কার মধ্যে আছি।’

ছেলে রানার সঙ্গে জমিসংক্রান্ত বিরোধ এবং থানায় মামলার কথা স্বীকার করলেও অডিও কলটি তার নয় বলে দাবি করছেন সাবেক সাংসদ হিরু। তিনি বলেন, ‘আমার পুত্রবধূকে আমি কখনো দেখিনি। তার সঙ্গে কখনো কথা বলিনি।’

পাথরঘাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ শাহাবুদ্দিন জানান, বেবী থানায় এসে হুমকির বিষয়ে মৌখিক অভিযোগ দিয়েছে। পরে তাকে লিখিত অভিযোগ দেয়ার জন্য পরামর্শ দেয়া হয়। যদি তিনি লিখিত অভিযোগ দেয় তাহলে অবশ্যই আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

(ঢাকাটাইমস/৭নভেম্বর/আইএইচ/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :