পিকআপচালক হত্যা: হাত-পা বেঁধে জীবন্ত ফেলা হয় নদীতে

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ১৬:৩৭

রাজধানীর বুড়িগঙ্গা নদীতে গত নভেম্বরের শুরুতে অজ্ঞাত এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার হয়। কিন্তু কোনোভাবে মরদেহের পরিচয় মিল ছিল না। তবে একমাস পর সেই হত্যার রহস্য উন্মোচন করেছে নৌ-পুলিশ।

জানা গেছে, হত্যার শিকার সেই যুবকের নাম মো. শাকিব। তিনি ভোলা জেলার দুলারহাট উপজেলার মো. কামালের ছেলে। তিনি পিকআপচালক ছিলেন।

রবিবার রাজধানীতে পৃথক অভিযান চালিয়ে এই হত্যাকাণ্ডে জড়িত দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে নৌ-পুলিশ।

নৌ পুলিশ জানিয়েছে, হত্যাকারীরা কুরিয়ার সার্ভিস কোম্পানি চালুর জন্য শাকিবের কাছ থেকে পিকআপ চেয়েছিল। কিন্তু সেটি মালিকের অনুমতি ছাড়া দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে তাকে মারধর করে হাত-পা বেঁধে রাখা হয়। এরপর রাতের অন্ধকারে তারই পিকআপে করে জীবন্ত অবস্থায় হাত-পা বেঁধে ফেলে দেওয়া হয় নদীতে। মূলত পিকআপটি নিতেই হত্যাকারীরা চালককে মেরে ফেলেন।

সোমবার রাজধানীর নৌ পুলিশের বসিলা পুলিশ ফাঁড়িতে সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান ঢাকা অঞ্চলের পুলিশ সুপার গৌতম কুমার বিশ্বাস।

তিনি বলেন, হত্যার শিকার শাকিব জীবিকার সন্ধানে ঢাকায় এসে ভাড়ায় পিকআপ চালানো শুরু করেন। গত ১ নভেম্বর মোহাম্মদপুর থানার রায়েরবাজার এলাকার সাদেক খান বাজারে কয়েকজন যুবক মুন্সীগঞ্জ থেকে আলু আনার জন্য ৫০০ টাকা অগ্রিম দিয়ে শাকিবের পিকআপভ্যান ভাড়া করেন। কথামতো ৩ নভেম্বর বিকালে পূর্ব নির্ধারিত ঠিকানায় গেলে শাকিবকে কুরিয়ারের ব্যবসার জন্য পিকআপ দিয়ে সহযোগিতা করার প্রস্তাব দেয় হত্যাকারীরা। কিন্তু শাকিব রাজি না হওয়ায় হাত-পা বেঁধে ভয় দেখানো হয়। কিন্তু তাতেও রাজি না হওয়ায় হাত-পা বাঁধা অবস্থায় বুড়িগঙ্গা নদীতে ফেলে দেয় তারা। এরপর ঘাতকরা শাকিবের সঙ্গে থাকা পিকআপভ্যানটি নিয়ে অন্যত্র সরিয়ে রাখে। নদী ফেলে দেওয়ার দুই দিন পর হাত-পা বাঁধা ও মুখে স্কচটেপ পেঁচানো অবস্থায় গলিত লাশ উদ্ধার করে নৌ-পুলিশের মোহাম্মদপুরের বসিলা পুলিশ ফাঁড়ি। পরে নিহতের পরিবারের সদস্যরা শনাক্ত করেন। এই ঘটনায় কেরাণীগঞ্জ থানায় একটি মামলা হলে তদন্তের দায়িত্ব পান নৌ পুলিশের বসিলা ফাঁড়ির পরিদর্শক অনিমেশ হালদার। দীর্ঘ ১ মাস তদন্তের পর হত্যায় জড়িত তিন জনকে শনাক্ত করে তদন্তদল। রবিবার রাতে দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ থানার ভাঙ্গাবাড়ি ব্রিজ এলাকায় অভিযান চালিয়ে হত্যায় জড়িত দু'জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। তারা হলেন- মো. মিজানুর রহমান ওরফে সায়েম ও মো. সিয়াম। এছাড়া রিয়াজ নামের অপর এক আসামি পলাতক রয়েছেন। অভিযুক্তদের কাছ থেকে হত্যায় ব্যবহৃত রশি, স্কচটেপ ও দুটি মোবাইলফোন উদ্ধার করা হয়েছে।

নৌপুলিশের এই কর্মকর্তা বলেন, শাকিব হত্যায় তিনজন জড়িত। তারা তার সঙ্গে রাজধানীর ধানমন্ডিতে একটি কুরিয়ারে কাজ করতেন। কিন্তু কুরিয়ার প্রতিষ্ঠানটি ঠিকমতো বেতন দিত না। ফলে নিজেরাই আলাদা পিকআপ গাড়ি দিয়ে কুরিয়ার সার্ভিস ব্যবসা করার পরিকল্পনা করেন। তাদের এই ব্যবসায়ে পিকআপ চালক প্রয়োজন হয়। তাদের পরিকল্পনা ছিলো মালামাল ডেলিভারি দিয়ে প্রাপ্ত কমিশনের টাকা তাকে অর্ধেক দিয়ে বাকি অর্ধেক তিনজনে ভাগ করে নেবে। পিকআপচালক যদি প্রস্তাবে রাজি হয় তো ভালো, না হলে তাকে হত্যা করে পিকআপ ছিনতাই করে নদীতে লাশ ফেলে দেওয়ার পরিকল্পনা করেন।

হত্যার পরিকল্পনায় যা ছিল

পরিকল্পনা অনুযায়ী মিজানুর রহমান ওরফে সায়েম ও রিয়াজ ১ নভেম্বর রায়ের বাজার সাদেক খান কৃষি মার্কেটের সামনে গিয়ে ৫০০টাকা দিয়ে শাকিবকে ভাড়ার কথা বলে টার্গেট করেন। পরে ৩ নভেম্বর শাকিবকে মিজানের বাসায় আসতে বলা হয়। ঘটনার দিনে শাকিব পিকআপ নিয়ে মিজানুর রহমানের বাসায় সন্ধ্যার দিকে আসে। শাকিব আসলে তাকে হত্যাকারীরা তাদের ব্যবসার পরিকল্পনার কথা বলেন। কিন্তু চালক শাকিব কোনোভাবেই তাতে রাজি হচ্ছিলেন না। এক পর্যায়ে মিজানের বাসায় থাকা কালো রশি দিয়ে হাত পা বেঁধে ও কালো স্কচটেপ দিয়ে শাকিবের মুখে লাগিয়ে ভয় দেখাতে থাকেন। কিন্তু কোনোভাবেই সে রাজি না হওয়ায় তারা তিনজন পিকআপটি ছিনতাই করার জন্য পিকআপটি চালিয়ে ভাঙ্গাবাড়ী ব্রিজের পূর্ব পাশে নদীতে আনার পর শাকিবকে জীবিত অবস্থায় নদিতে ফেলে দেয়। পরে পিকআপটিতে জিপিএস লাগানো থাকতে পারে এই সন্দেহে দুই তিন দিন পিকআপটির কোনো খোঁজ হয় কি না তা জানার জন্য অপেক্ষায় থেকে হাবিব চেয়ারম্যানের বাড়ির বিপরীত পাশে রাস্তার পাশে ফাঁকা জায়গায় পার্কিং করে তারা তিনজনই বাসায় চলে যান। কিন্তু গত ৫ নভেম্বর পিকআপ উদ্ধার ও পরের দিন ৬ নভেম্বর শাকিবের লাশ উদ্ধারের পর আসামিরা আত্মগোপনে চলে যান।

ঢাকাটাইমস/০৫ডিসেম্বর/এসএস/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

অপরাধ ও দুর্নীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

অপরাধ ও দুর্নীতি এর সর্বশেষ

আ.লীগ নেতা টিপু-প্রীতি হত্যা: আসামি বিডি বাবুকে জামিন দেননি হাইকোর্ট

রাজধানীতে তরুণীর কান ছিঁড়ে স্বর্ণের দুল ছিনতাই

বান্দরবানে জঙ্গিদের সঙ্গে গোলাগুলিতে র‌্যাবের আট সদস্য আহত, পাঁচজন আটক

ছিনতাই করা মোবাইলের আইএমআই বদলে বিক্রি হতো মার্কেটে, গ্রেপ্তার ৩

আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তির ৬ কোটি টাকা হাতিয়ে ফ্ল্যাটের ব্যবসা, দোকান

সংঘবদ্ধ ধর্ষণ ও হত্যা: যাবজ্জীবন সাজা নিয়ে ১৭ বছর পলাতক, অবশেষে গ্রেপ্তার

রাজধানীতে ২০ ছিনতাইকারী ও কিশোর অপরাধী আটক

থানচিতে জঙ্গি ও পাহাড়ি সন্ত্রাসীদের সঙ্গে র‍্যাবের গোলাগুলি

বিদ্যালয় পরিদর্শকের স্বাক্ষর জালকারী চক্রের সদস্য গ্রেপ্তার

ময়মনসিংহে মোস্তফা হত্যা: দুই যুগ পর মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি ঢাকায় গ্রেপ্তার

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :