ইসলামের ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে কিছু জঙ্গি সংগঠন মাথাচাড়া দিতে চায়

আহম্মেদ মুন্নী, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৬:০৯ | প্রকাশিত : ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০০:০১

জঙ্গি-সন্ত্রাসবাদসহ আন্তদেশীয় অপরাধ মোকাবিলায় ঢাকা মহানগর পুলিশের একটি বিশেষয়াতি ইউনিট ‘কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম’- (সিটিটিসি)। দেশে সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও পরিকল্পিত অপরাধ দমনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলছে এ সংস্থাটি। মাদক, চোরাকারবার, রিয়েল এস্টেট মাফিয়াসহ নানারকম অনিয়ম ও দুর্নীতি কার্যকলাপ থেকে লব্ধ আয় দিয়ে জঙ্গিবাদ বা সন্ত্রাসবাদের উত্থান প্রচলন অনেক দেশে থাকলেও কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের মনিটরিং ও তৎপরতায় বাংলাদেশে কোনো জঙ্গি সংগঠনই সংগঠিত হতে পারেনি। ২০২১ সালের ১৩ এপ্রিল থেকে সংস্থাটির প্রধান দায়িত্বে রয়েছেন মো.আসাদুজ্জান। ঢাকা টাইমসের সঙ্গে একান্ত আলাপে তিনি জানিয়েছেন সিটিটিসির গতিপ্রকৃতি ও লক্ষ্য উদ্দেশ্য নিয়ে বিস্তারিত।

একান্ত আলাপে ঢাকা টাইমসকে তিনি জানান, উন্মুক্ত সাইবার ওয়ার্ল্ডের যুগেও সাইবার জগতের যতটুকু নিয়ন্ত্রণে আছে তাতে সিটিটিসির নিয়মিত মনিটরিং ও পর্যবেক্ষণের কারণেই দেশে জঙ্গি তৎপরতা নেই।

মো.আসাদুজ্জান বলেন, বাংলাদেশে ইসলামের ভূল ব্যাখ্যার আশ্রয়ে সাধারণের ‘ব্রেন ওয়াশ’ করিয়ে কিছু জঙ্গি সংগঠন মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে চায়। এই মুহূর্তে তাদের দৃশ্যমান কোনো র্কাযক্রম নেই। অনলাইনে যদিও তারা নানারকম মিথ্যা তথ্য দিয়ে সদস্য সংগ্রহের চেষ্টা চালায়। আমাদের নজরে আসার সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা গ্রহণ করি।

অনলাইন দুনিয়ার উন্মুক্ততার কারণে সীমাবদ্ধতার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, সাইবার ওয়ার্ল্ড তো উন্মুক্ত। তবে আমাদের নিয়ন্ত্রণে যতটুকু আছে তা আমরা মনিটরিংয়ে রেখেছি বলেই দেশে জঙ্গি তৎপরতা নেই।

আনসার ফিল হিন্দাল শারক্বীয়া যেভাবে তাদের কার্যক্রম শুরু করেছিল এটা বাংলাদেশের জঙ্গিবাদের একটা বিরল ঘটনা। তারা সব সদস্যদের সশস্ত্র প্রশিক্ষিত করে তুলবে, এটি ইতোপূর্বে হয়নি। ঠিক তাদের মতো করতে চেয়েছিল জঙ্গি সংগঠন ইমাম মাহমুদের কাফেলা।

সিটিটিসি প্রধান বলেন, যারা রেডিকালাইজড হয়ে জঙ্গিবাদে জড়িয়েছেন, তাদের অবস্থাটা কেমন হয়েছিল, একদিনেই তারা বদলে যায়নি। নিজেদের মধ্যে তারা দিনের পর দিন বদল এনেছে। রেডিকালাইজড হওয়া জঙ্গিদের অধিকতর মনিটরিং করে তারা ‘কীভাবে বদলে যাবার ধাপগুলো অতিক্রম করলো আমরা তা খুঁজে বের করেছি। জঙ্গিবাদে জড়ানো ব্যাক্তি কীভাবে যোগাযোগ মেইনটেইন করত? বন্ধুদের সঙ্গে যোগাযোগ করতো! বাসা থেকে বের হয়ে বা হিজরতে কারা অনুঘটক হিসেবে কাজ করেছে, কী এমন স্বপ্ন তাদের দেখানো হয় যে, তারা এতটা রেডিকালাইজড হয়?’ সেসব আমরা খুঁজে বের করেছি। এসব জঙ্গি সদস্য গ্রেপ্তারের পর প্রচলিত আইনে সাজা খেটে বের হবার পরও আমরা নজরে রাখি এবং তাদের ভাষায় বুঝিয়ে সুপথে ফিরতে সহযোগিতা করি।

‘পারিবারিক সচেতনতার জন্য অভিবাবক বা জনসাধারণের ক’জন জঙ্গির বৈশিষ্ট সম্পর্কে জানি’ প্রশ্ন রেখে তিনি বলেন, এ সম্পর্কে ধারণা দেওয়ার চেষ্টা করছি আমরা। হঠাৎ করে কেউ জঙ্গি হয়ে ওঠে না। একজন মেইন স্ট্রীমের মানুষ বা সাধারণ মানুষ কালকে বা একবছর পরে জানতে পারছেন সে জঙ্গি। আমাদের একজন প্রতিবেশি যখন গ্রেপ্তার হয় তখন জানা যায় সে সন্ত্রাসবাদে সম্পৃক্ত। এটাতো সে একদিনে হয়নি। বিভিন্ন পর্যায় অতিক্রম করে সে জঙ্গি হয়েছে। আমরা গবেষণা করে যে সকল বৈশিষ্ট পেয়েছি সেসব নিয়ে কাজ করে যাচ্ছি। এ নিয়ে আমরা একটি বিশেষ প্রকল্প গ্রহণ করেছি।

একনেকে অনুমোদনের পর প্রকল্পটির কাজে গতি আসে। আগারগাঁওয়ে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের নিজস্ব ১৪ তলা ভবন নির্মাণ হচ্ছে। এর মধ্য দিয়ে সিটিটিসি আরও শক্তিশালী হল। সিটিটিসি একটি আধুনিক ও সুপ্রশিক্ষিত বাহিনী। যে বাহিনী দেশে উগ্রবাদ, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণে মূখ্য ভূমিকা পালন করছে এবং করবে।

(ঢাকাটাইমস২২ফেব্রুয়ারি/এএম/এসআইএস)

সংবাদটি শেয়ার করুন

সাক্ষাৎকার বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সাক্ষাৎকার এর সর্বশেষ

প্রতি মুহূর্তেই মনে হচ্ছিল আর্মিরা ধরে নিয়ে যাবে: ফরিদা খানম সাকি

দাম বাড়ালে এতক্ষণে কার্যকর হয়ে যেত: ক্যাব সহ-সভাপতি নাজের হোসাইন

জন্ম থেকেই নারীদের যুদ্ধ শুরু হয়: নারী উদ্যোক্তা ফরিদা আশা

নারীরা এখন আর পিছিয়ে নেই

ভবন নির্মাণে সিটি করপোরেশনের ছাড়পত্র নেওয়ার নিয়ম করা উচিত: কাউন্সিলর আবুল বাশার

তদারকি সংস্থা এবং ভবন নির্মাতাদের দায়িত্বশীল হতে হবে: অধ্যাপক আদিল মুহাম্মদ খান

বেইলি রোডের আগুনে রাজউকের ঘাটতি রয়েছে: মো. আশরাফুল ইসলাম

নতুন করে পরীক্ষা-নিরীক্ষার মাধ্যমে নিশ্চিত হয়ে ভবন অনুমোদন দিতে হবে: ইকবাল হাবিব

বীমা খাতে আস্থা ফেরাতে কাজ করছি: আইডিআরএ চেয়ারম্যান জয়নুল বারী

আধুনিক মানের যাত্রীসেবা নিশ্চিতে কাজ করছে বেবিচক

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :