সিরিজে ২-০ তে এগিয়ে গেল বাংলাদেশ

ক্রীড়া ডেস্ক, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ০৫ মে ২০২৪, ২২:০০ | প্রকাশিত : ০৫ মে ২০২৪, ২১:৫৬

জুনে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে নিজেদের ঝালিয়ে নিতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলছে বাংলাদেশ।

প্রথম ম্যাচে সফরকারীদের ৮ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে হারানোর পর দ্বিতীয় ম্যাচে ৬ উইকেটের জয় পেল বাংলাদেশ। এই জয়ে সিরিজে ২-০ তে এগিয়ে গেল টাইগাররা।

আজ রবিবার (৫ মে) চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টস জিতে আগে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন দলীয় অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্ত।

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ৭ উইকেটে ১৩৮ রান তুলে জিম্বাবুয়ে। ১৩৯ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৮ ওভার ৩ বলেই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় বাংলাদেশ। তাওহীদ হৃদয় ২৫ বলে ৩৭ ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ১৬ বলে ২৬ রানে অপরাজিত থকেন।

বাংলাদেশের হয়ে আজ ওপেনিংয়ে নামেন লিটন দাস ও তানজিদ হাসান তামিম। শুরু থেকেই দেখেশুনে খেলতে থাকেন তারা। ব্যর্থতার বৃত্তে বন্দী লিটন আজ ভালো শুরু করেন। তবে ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠা এই জুটিকে বেশিদূর এগোতে দেননি আইন্সলে এন্দলোভু।

আইন্সলে এন্দলোভুর বলে ব্রায়ান বেনেটের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে সাজঘরে ফিরে যান তানজিদ হাসান তামিম। তার বিদায়ে ৪১ রানে প্রথম উইকেট হারায় বাংলাদেশ।

তামিমের বিদায়ের পর শান্তকে নিয়ে জুটি গড়েন লিটন। তবে এর কিছু সময় পর নামে বৃষ্টি। তবে প্রথম ম্যাচের মতো এবার লম্বা সময় কভারের নিচে থাকেনি পিচ। তিন মিনিট পরই বৃষ্টি থেমে গেলে আবার মাঠে নামে দুই দল। মাঠে নেমেই দেখেশুনেই খেলতে থাকেন তারা। তবে এরপর আর বেশি সময় আর ক্রিজে থাকতে পারেননি শান্ত।

১৫ বলে ১৬ রান করে লুক জংবের বলে লং অনে রায়ার বার্লের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে সাজঘরে ফিরে যান শান্ত। তার বিদায়ে ভাঙে ২০ রানের জুটি।

শান্তর পর বেশি সময় ক্রিজে থাকতে পারেননি লিটন দাসও। ২৫ বলে ২৩ রান করে লাইক জঙ্গুয়ের দ্বিতীয় শিকার হয়ে সাজঘরে ফিরে যান তিনি। জঙ্গুয়ের বলে ব্যাকওয়ার্ড পয়েন্টে জোনাথন ক্যাম্পবেলের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে সাজঘরে ফিরে যান তিনি। তার বিদায়ে ৬২ রানে ৩ উইকেট হারায় বাংলাদেশ।

লিটনের বিদায়ের পর আবারও আঘাত হানে বৃষ্টি। তবে এবারও বৃষ্টি দীর্ঘায়িত হয়নি। অল্প কিছু সময় সময় বন্ধ থাকার পর আবারও শুরু হয় খেলা। খেলা শুরুর পর জাকের আলী অনিককে নিয়ে দেখেশুনেই খেলতে থাকেন তাওহীদ হৃদয়। তবে তারাও ব্যর্থ হন, নিজেদের জুটিকে বেশিদূর নিয়ে যেতে পারেননি তাওহীদ-জাকের।

দলীয় ৯৩ রানে রিচার্ড এনাগারাভার বলে বোল্ড হয়ে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন ১২ বলে ১৩ রান করা জাকের আলী অনিক। তার বিদায়ে ভাঙে ৩১ রানের জুটি।

অনিকের বিদায়ের পর ক্রিজে আসেন অভিজ্ঞ মাহমুদউল্লাহ। তাওহীদের সঙ্গে জুটি গড়ে দলকে জয়ের বন্দরে নিয়ে যান তিনি। এই জুটিতে ভর করে ১৮ ওভার ৩ বলেই জয় তুলে নেয় বাংলাদেশ। তাওহীদ হৃদয় ২৫ বলে ৩৭ ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ১৬ বলে ২৬ রানে অপরাজিত থেকে ম্যাচ শেষ করেন। এর আগে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে প্রথম টি-টোয়েন্টির পর দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতেও শুরুতে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে জিম্বাবুয়ে। বাংলাদেশি বোলারদের বোলিং তোপে মাত্র ৪৫ রানেই ৫ উইকেট হারিয়ে বিপর্যয়ে পড়ে তারা। এরপর ষষ্ঠ উইকেটে ব্রায়ান বেনেট ও জোনাথন ক্যাম্পবেলের ৭৩ রানের জুটিতে ভর করে নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৩৮ রান তুলতে সক্ষম হয় জিম্বাবুয়ে। ব্রায়ান বেনেট অপরাজিত থাকেন ২৯ বলে ৪৪ রান করে।

(ঢাকাটাইমস/০৫ মে/এনবিডব্লিউ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :