বিআইআইএসএস-এ ‘মানবপাচার ও অভিবাসী চোরাচালান প্রতিরোধ’ বিষয়ক সভা অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৭ মে ২০২২, ১৪:৫৯ | প্রকাশিত : ২৫ মে ২০২২, ১৮:৪০

মানবপাচার ও অভিবাসী চোরাচালান প্রতিরোধে সচেতন গোটা বিশ্ব। বাংলাদেশও তার ব্যতিক্রম নয়। সেই লক্ষ্যে বুধবার (২৫ মে) বেলা ১১টা থেকে রাজধানীর ইস্কাটনে অবস্থিত বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ইন্টারন্যাশনাল অ্যান্ড স্ট্র্যাটেজিক স্টাটিজ (বিআইআইএসএস) অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয় ‘Promoting Multilateral Cooperation to Prevent Human Trafficking and Migrant Smuggling’ বিষয়ক এ সেমিনার।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রতিনিধিদলের প্রধান রাষ্ট্রদূত চার্লস হোয়াইটলি। এতে সভাপতিত্ব করেন বিআইআইএসএস-এর চেয়ারম্যান রাষ্ট্রদূত কাজী ইমতিয়াজ হোসেন। সেখানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন বিআইআইএসএস-এর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মোহাম্মদ মাকসুদুর রহমান।

প্রধান অতিথি চালর্স হোয়াইটলি তার বক্তব্যে বলেন, ‘রিফিউজি ইস্যু এখন ইউরোপে অত্যন্ত আলোচিত একটি বিষয়। যৌন নির্যাতন মানব পাচারের অন্যতম একটি কারণ। এছাড়া বর্তমানে অভিবাসী চোরাচালান একটি লাভজনক ব্যবসায়ে পরিণত হয়েছে।’ তিনি মানব পাচার রোধে বাংলাদেশ সরকারের ভূমিকার প্রশংসা করেন। বলেন, মানবপাচার রোধে ইউরোপীয় ইউনিয়ন বাংলাদেশ সরকারকে নানাভাবে সহযোগিতা করছে।

বিআইআইএসএস-এর মহাপরিচালক মাকসুদুর রহমান তার বক্তব্যে বলেন, ‘ক্রমবর্ধমান মানব পাচার বিষয়ে বাংলাদেশ সতর্ক রয়েছে। এর গুরুত্ব বুঝে ২০১২ সালে মাবন পাচার প্রতিরোধ ও দমন আইন ২০১২ পাস করেছে ও জাতিসংঘের অভিবাসী কর্মী ও তার পরিবারের সুরক্ষা বিষয়ক সম্মেলনে যুক্ত হয়েছে এবং বৈদেশিক কর্মসংস্থান ও অভিবাসী আইন ২০১৩ গৃহিত হয়েছে। এছাড়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিচক্ষণ নেতৃত্বে বাংলাদেশ সরকার প্ল্যান অব অ্যাকশন-এর অধীনে মানবপাচার দমন ও প্রতিরোধ (২০১৮-২০২২) বাস্তবায়ন করছে।’

সমাপনী বক্তব্যে বিআইআইএসএস-এর চেয়ারম্যান কাজী ইমতিয়াজ হোসেন বলেন, ‘দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলো মানবপাচারের উৎসব, গমন ও গন্তব্যস্থল হিসেবে কাজ করে। এই দেশগুলোতে আর্থ-সামাজিক বৈষম্য, অভ্যন্তরীণ অভিবাসন প্রবাহ, অর্থনৈতিক উর্ধ্বগতির সঙ্গে দুর্নীতির প্রসার, দুর্বল বিচার ব্যবস্থা, আইন প্রয়োগের অসমতা ইত্যাদি অপরাধ বৃদ্ধিতে নিয়ামক হিসেবে কাজ করে থাকে।’

সেমিনারে কর্ম অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. তাসনিম সিদ্দিকী। সেখানে ‘Promoting Multilateral Cooperation to Prevent Human Trafficking and Migrant Smuggling’-এর উপর বক্তব্য দেন বিআইআইএসএস-এর রিসার্চ ফেলো বেনুকা ফেরদৌসী। আরও বক্তব্য দেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের অধ্যাপক মোহাম্মদ ওবায়দুল হক।

এ ছাড়া সেমিনারে ‘Promoting Multilateral Cooperation to Prevent Human Trafficking and Migrant Smuggling’- Bangladesh Perspectives এর উপর প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন অভিবাসী ও উদ্বাস্তু বিষয়ক বিশেষজ্ঞ আসিফ মুনির। অনুষ্ঠানে ‘Promoting Multilateral Cooperation to Prevent Human Trafficking and Migrant Smuggling- Global Prospective এর উপর প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বাংলাদেশে নিযুক্ত আন্তর্জাতিক অভিবাসী সংস্থার সুরক্ষা ও অভিবাসী বিষয়ক কার্যক্রম পরিচালক ইউজিন পার্ক।

অনুষ্ঠানে বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও সংস্থার উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা, বৈদেশিক দূতাবাসের প্রতিনিধি, সাবেক কূটনীতিক, উর্ধ্বতন সামরিক কর্মকর্তা, বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রতিনিধি, সরকারি-বেসরকারি গবেষণা সংস্থার প্রতিনিধি এবং মিডিয়া ব্যক্তিত্ব অংশগ্রহণ করে এবং তাদের মতামত তুলে ধরেন।

(ঢাকাটাইমস/২৫ মে/এএইচ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

জাতীয় এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :