নয়াপল্টনেই সমাবেশ করতে চায় বিএনপি, জানাল ডিএমপি কমিশনারকে

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩:২৫ | প্রকাশিত : ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩:১৫

রাজধানীর নয়াপল্টনে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনেই ১০ ডিসেম্বর গণসমাবেশ করতে চায় বিএনপি। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার খন্দকার গোলাম ফারুকের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে এ ব্যাপারে জানিয়েছে বিএনপির একটি প্রতিনিধি দল। একই সঙ্গে দলের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, সমাবেশ হবে শান্তিপূর্ণ। নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার না করে সমাবেশ সফল করতে ডিএমপির সহযোগিতা চেয়েছেন প্রতিনিধি দলের সদস্যরা।

রবিবার বিকালে (ডিএমপি) কমিশনারের কার্যালরেয় খন্দকার গোলাম ফারুকের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে বিএনপির প্রতিনিধি দল।

প্রতিনিধি দলে ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আমান উল্লাহ আমান, দলের যুগ্ম সচিব মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম আজাদ, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানী ও সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক বেনজির আহমেদ টিটু।

বৈঠক শেষে আমান উল্লাহ আমান গণমাধ্যমকর্মীদের বলেন, নয়াপল্টনে সমাবেশের কথা বলেছি। এখন পর্যন্ত সেটাই রয়েছে। বিএনপির প্রচার সম্পাদক শহিদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী ও পুলিশের ঊধ্বতন কর্মকর্তা আলোচনার পরে যদি কোনো নতুন কিছু আসে সেটা জানানো হবে।

তিনি বলেন, নয়টি বিভাগীয় সমাবেশে যেভাবে হয়েছে ঢাকার সমাবেশ ঠিক সেভাবে হবে। শান্তিপূর্ণ কর্মসূচির মধ্যে এমন কিছু হবে না যে কেউ বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করবে। যদি সরকারি দলের পক্ষ থেকে না হয়, যদি সরকারের পক্ষ থেকে না হয়।

আমান বলেন, ঢাকায় সমাবেশের পূর্বে বিএনপি নেতা কর্মীদেরকে গ্রেপ্তার করা হচ্ছে এটাও পুলিশ কমিশনারকে অবহিত করেছি। ঢাকায় গণ সমাবেশে জনস্রোত বাধাগ্রস্ত করতে তারা এই পথ বেছে নিয়েছে। আমরা শান্তিপূর্ণ সমাবেশ করতে দেওয়ার বিষয়ে কমিশনারকে অনুরোধ জানিয়েছি।

বৈঠকের ব্যাপারে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার উপদেষ্টা আব্দুস সালাম বলেন, ঢাকা বিভাগীয় সমাবেশের স্থান নিয়ে পুলিশ কমিশনারের সঙ্গে আমাদের কথা হয়েছে। আমরা বুঝানোর চেষ্টা করেছি। সারাদেশে নানা প্রতিবন্ধকতার মধ্যে যেভাবে আমরা সমাবেশ পালন করেছি একইভাবে ঢাকাতে আমরা শান্তিপূর্ণভাবে সমাবেশ পালন করব। আমরা চেষ্টা করছি যাতে ১০ তারিখের সমাবেশটি শান্তিপূর্ণভাবে করতে পারি এবং অনুরোধ করেছি এর পূর্বে যাতে উত্তপ্ত পরিস্থিতি তৈরি জন্য এমন কোনো কথা না বলা হয়। পাশাপাশি ঢাকা মহানগর উত্তর দক্ষিণে যে গ্রেপ্তার চলছে। যাতে কোনোভাবে বিএনপির একটি কর্মীও এ সময় গ্রেপ্তার না হয়। যদি বলা হয় যে মামলা রয়েছে, মামলা তো সকলের বিরুদ্ধে রয়েছে, কিন্তু আটক করে পুরানো মামলা দেওয়া হয়।

তিনি বলেন, দশ ডিসেম্বর সমাবেশের জন্য ভেন্যুর বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। আমরা প্রয়োজনে আবার আলোচনা করব। আমরা চেষ্টা করছি যাতে সমাবেশ ভালোভাবে করতে পারি। সেজন্য উনারা আমাদের সহযোগিতা করবেন। আমরাও সহযোগিতা করব এবং ভেন্যুর ব্যাপারে আমরা আলোচনা করেছি, এটা পরবর্তী পর্যায়ে জানাবো এখন পর্যন্ত আমাদের যে ভেন্যু সেটাই ঠিক আছে।

ঢাকাটাইমস/০৪ডিসেম্বর/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

যারা এরশাদের নাম মুছে ফেলতে চায় তারাই আলাদা হয়ে থাকতে পারে: রওশন এরশাদ

ভারতীয় পণ্য বর্জনে গণঅধিকার পরিষদের বিক্ষোভ, মিছিলে পুলিশি বাঁধার অভিযোগ

সুন্দর বাংলাদেশ গড়তে যুবকদের এগিয়ে আসার আহ্বান ইসলামী যুব মজলিসের  

ঢাবি ছাত্রদল সভাপতি সোহেল কারামুক্ত

আমরা গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের জন্য চেষ্টা করছি: নজরুল ইসলাম

কারামুক্ত আলালের বাসায় মঈন খান 

পেঁয়াজ নিয়ে যারা কারসাজি করে তাদের গণধোলাই দেওয়া উচিত: প্রধানমন্ত্রী

এবার দল পুনর্গঠনে বিএনপি 

বিদ্যুৎ খাতে লুণ্ঠন নীতির মাশুল জনগণ দেবে না: গণতন্ত্র মঞ্চ

বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণের সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চলছে: ওবায়দুল কাদের

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :