শিক্ষক নিবন্ধন: চতুর্থ গণবিজ্ঞপ্তি চেয়ে এনটিআরসিএ’র সামনে অবস্থান

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ১৪:১৮ | প্রকাশিত : ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ১৩:৪৪

‘বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ-এনটিআরসিএ’র অধীনে সারাদেশে বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ৭০ হাজার শূন্যপদের বিপরীতে ৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি অতি দ্রুত প্রকাশের দাবিতে অনশন করছেন চাকরি প্রত্যাশীরা।

সোমবার দুপুর ১২টায় ৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি চেয়ে এনটিআরসিএ কার্যালয়ের সামনে ৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রত্যাশী শিক্ষক ফোরামের ব্যানারে অনশনে বসেন তারা।

ফোরামের সভাপতি এম.এ আলম বলেন, ‘আমরা ১০ নভেম্বর প্রতীকি অনশন কর্মসূচি পালন করেছি। এই অনশন স্থলে এনটিআরসিএ এর সচিব ওবায়দুর রহমান আমাদেরকে আশ্বস্ত করেন যে নভেম্বরেই গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করবে এনটিআরসিএ। কিন্তু কয়েকবারের মতো গত ১০ তারিখের প্রতিশ্রুতিও এনটিআরসিএ রাখতে পারেনি, অত্যন্ত হতাশা ও ক্ষোভের সৃষ্টি করেছে।’

এম.এ আলম বলেন, ‘গণবিজ্ঞপ্তি প্রত্যাশী প্রার্থীদের দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে। বন্ধুবান্ধব, পরিবার ও সমাজ সকল ক্ষেত্র থেকে লাঞ্ছিত ও অবহেলিত হচ্ছে। প্রিলিমিনারি, রিটেন ও ভাইবা পাস করে এক বিজ্ঞপ্তির জন্য এভাবে রাস্তায় নামতে হবে, অনশনে বসতে হবে, এটা জাতি ও সরকারের জন্য অত্যন্ত লজ্জার।’

তিনি আরো বলন, ‘বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলায় উচ্চ শিক্ষিত বেকার শিক্ষকদের নিয়ে টালবাহানা মেনে নেয়ার মতো না। আমরা যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে দ্রুত সমাধান চাই।’

৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রত্যাশী শিক্ষক ফোরামের সাধারণ সম্পাদক রাশেদ অর্নব বলেন, ‘বেকারদের নিদারুণ কষ্ট ও দুঃখ দেখার কেউ কী নেই? এনটিআরসিএ এর কাছে জবাব চাই। নিবন্ধন পাস করা কি তাহলে আমাদের অপরাধ ছিল? আজকে এসব প্রশ্নের উত্তর দিতেই হবে। আর কোনো প্রতিশ্রুতি নয়, দ্রুত বিজ্ঞপ্তি চাই।’

তিনি আরও বলেন, ‘আজকে আর কোনো প্রতিশ্রুতিতে আমরা পিছপা হবো না। ইতিপূর্বে দেয়া কয়েকবারের প্রতিশ্রুতিও বাস্তবায়নে ব্যর্থ হয়েছে এনটিআরসিএ। এবার আর কোনো সুযোগ নয়, ৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ চাই অথবা প্রকাশের সুনির্দিষ্ট তারিখ চাই। উচ্চশিক্ষিত এসব তরুণ বেকার শিক্ষকেরা আর ঘরে বসে থাকবে না। অধিকার আদায়ে সোচ্চার হয়ে মাঠে যেহেতু নেমেছি, যৌক্তিক দাবি আদায় করেই ঘরে ফিরব।’

অনশনরত শিক্ষকরা জানান, ১৬তম প্রার্থীরা প্রায় তিন বছর ও অন্যান্য নিয়োগ প্রত্যাশী হাজারো নিবন্ধনধারী দীর্ঘদিন ধরে গণবিজ্ঞপ্তির জন্য অপেক্ষা করছেন। আসন্ন ৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি দ্রুত প্রকাশ করার জন্য মন্ত্রণালয় ও এনটিআরসিএ’র দ্বারে বারবার ঘুরেছেন তারা।

‘দুঃখের বিষয় আজ অবদি বহুল কাঙ্খিত সেই গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হলো না। যা ৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রত্যাশী হাজার হাজারো প্রার্থীকে গভীর দুশ্চিন্তা ও অনিশ্চয়তায় ফেলে দিয়েছে’-বলেন অন্দোলনরত শিক্ষকরা।

অনশনে ৪র্থ গণবিজ্ঞপ্তি প্রত্যাশী শিক্ষক ফোরামের ঢাকা বিভাগ সভাপতি মো. মাজেদুল ইসলাম, সহ-সভাপতি এনায়েতুল্লাহ তোহা, প্রচার সম্পাদক বৃষ্টি আক্তার, মাফরুহা বিথি প্রমুখ অংশ নিয়েছেন।

(ঢাকাটাইমস/০৫ডিসেম্বর/পিআর/এফএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

শিক্ষা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিক্ষা এর সর্বশেষ

প্রভোস্টের পদত্যাগ দাবিতে ভিসির বাসভবনের সামনে ঢাবি ছাত্রীরা

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে সরস্বতী পূজা উদযাপন

বিকাশ-বিজ্ঞানচিন্তা বিজ্ঞান উৎসবের আঞ্চলিক পর্বে অংশ নিল ৩ হাজার শিক্ষার্থী

সমাবর্তনে উইকেন্ড কোর্সের শিক্ষার্থীরা অংশ নেয়ায় আপত্তি জাবি শিক্ষার্থীদের

‘মৈত্রী হল কুইজ ক্লাবের’ উদ্যোগে ঢাবিতে হল পর্যায়ে কুইজ প্রতিযোগিতা

বিভিন্ন অপরাধে ঢাবির নাজমুলসহ ১১৪ শিক্ষার্থীকে বহিষ্কারের সুপারিশ

ইবিতে খেলোয়াড়দের আন্দোলন, প্রধান ফটকে তালা

জাবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি-সম্পাদকসহ আওয়ামীপন্থীদের নিরঙ্কুশ জয়

আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় হকিতে চ্যাম্পিয়ন চবি, দ্বিতীয় কুবি

ঢাবি উপাচার্যের সঙ্গে এশিয়া ফাউন্ডেশন প্রতিনিধিদলের সাক্ষাৎ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :