ইউক্রেনকে আরও ৩০ কোটি ডলার অস্ত্র সহায়তা দেবে যুক্তরাষ্ট্র

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০২ জুন ২০২৩, ১৬:৩৬ | প্রকাশিত : ০১ জুন ২০২৩, ১৬:২৪

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ইউক্রেনের জন্য ৩০ কোটি ডলারের নতুন অস্ত্র প্যাকেজ ঘোষণা করেছে যার মধ্যে বিমান প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা এবং কয়েক মিলিয়ন রাউন্ড গোলাবারুদ অন্তর্ভুক্ত। তবে আমেরিকার দেওয়া অস্ত্র রাশিয়ায় হামলার কাজে ব্যবহার না করতে কিয়েভকে সতর্ক করেছে দেশটি। খবর দ্য গার্ডিয়ানের।

জাতীয় নিরাপত্তা পরিষদের মুখপাত্র জন কিরবি বলেছেন, ‘আমরা ইউক্রেনীয়দের সঙ্গে ব্যক্তিগতভাবে খুব স্পষ্ট ছিলাম। আমরা অবশ্যই প্রকাশ্যে পরিষ্কার করে বলেছি যে আমরা রাশিয়ার অভ্যন্তরে আক্রমণ সমর্থন করি না এবং আমরা রাশিয়ার অভ্যন্তরে হামলাকে উত্সাহিতও করি না।’

প্রতিরক্ষা বিভাগ বলেছে, সর্বশেষ চালানের পর রাশিয়ার ২০২২ সালের ফেব্রুয়ারিতে আক্রমণ শুরু করার পর থেকে ইউক্রেনে মার্কিন নিরাপত্তা সহায়তার মোট মূল্য দাঁড়াবে ৩৭.৬ বিলিয়ন ডলার।

পেন্টাগন এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘যুক্তরাষ্ট্র তার মিত্র ও অংশীদারদের সঙ্গে ইউক্রেনকে তার তাৎক্ষণিক যুদ্ধক্ষেত্রের চাহিদা এবং দীর্ঘমেয়াদী নিরাপত্তা সহায়তার প্রয়োজনীয়তা মেটাতে সক্ষমতা প্রদানের জন্য কাজ চালিয়ে যাবে।’

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ন্যাটো এবং অন্যান্য সহযোগী দেশগুলির মাধ্যমে ইউক্রেনকে অস্ত্র ও অন্যান্য সাহায্য সরবরাহের জন্য অভূতপূর্ব প্রচেষ্টার নেতৃত্ব দিচ্ছে।

সর্বশেষ অস্ত্রের চালানটি এসেছে যখন ইউক্রেন একটি পাল্টা আক্রমণের প্রস্তুতি নিচ্ছে যার লক্ষ্য রাশিয়ার বাহিনীকে দেশের পূর্ব ও দক্ষিণে অধিকৃত অঞ্চল থেকে ফিরিয়ে আনা।

মস্কোতে ড্রোন হামলার অভূতপূর্ব ব্যারাজসহ রাশিয়ার অভ্যন্তরে লক্ষ্যবস্তুতে ছায়াময় পরিস্থিতিতে বেশ কয়েকটি আক্রমণের পরেও এই সহায়তা এসেছে।

কিরবি বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ইউক্রেনের কাছে তার মৌলিক নিয়মগুলি তৈরি করেছে। আমরা তাদের বলি না কোথায় হামলা করতে হবে। আমরা তাদের বলি না কোথায় হামলা করবেন না। অবশেষে, রাষ্ট্রপতি জেলেনস্কি এবং তার সামরিক কমান্ডাররা সিদ্ধান্ত নেন তারা কী করতে যাচ্ছেন।’

তিনি আরও বলে, মার্কিন সরবরাহকৃত সরঞ্জাম ব্যবহার করে রাশিয়ার অভ্যন্তরে যে আক্রমণগুলি করা হচ্ছে আমরা অবশ্যই তা দেখতে চাই না যা প্রচার করা হচ্ছে, যা পরিচালিত হচ্ছে।

কিরবি বলেছেন, এই ইস্যুতে ক্রমবর্ধমান উত্তেজনা সত্ত্বেও, হোয়াইট হাউস নিশ্চিত যে ইউক্রেন ইউক্রেন সীমানার বাইরে লক্ষ্যবস্তুর বিরুদ্ধে মার্কিন-নির্মিত এফ-১৬ যুদ্ধবিমান যেগুলো ইউরোপীয় দেশগুলি সরবরাহ করবে সেগুলো ব্যবহার না করার প্রতিশ্রুতি রক্ষা করবে। আমরা বিভিন্ন স্তরে সেই আশ্বাস পেয়েছি।

ওয়াশিংটন যখন রুশ আক্রমণকে পরাস্ত করার জন্য ইউক্রেনের প্রচেষ্টাকে পূর্ণ হৃদয় দিয়ে সমর্থন করছে, তখন এটি এমন পরিস্থিতি এড়াতে চায় যেগুলি পশ্চিম এবং ন্যাটো এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ক্ষতিকারক। তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ এড়াতে তা করা হয়েছে, কিরবি যোগ করেছেন।

পেন্টাগন বলেছে, ৩০ কোটি ডলারের প্যাকেজের মধ্যে প্যাট্রিয়ট এয়ার ডিফেন্স সিস্টেম, এইম-৭ এয়ার ডিফেন্স মিসাইল, অ্যাভেঞ্জার এয়ার ডিফেন্স সিস্টেম এবং স্টিংগার অ্যান্টি-এয়ারক্রাফ্ট ক্ষেপণাস্ত্র রয়েছে।

এছাড়াও প্যাকেজের অংশ হল হাই মোবিলিটি আর্টিলারি রকেট সিস্টেম (হিমারস), ১৫৫ মিমি এবং ১০৫ মিমি আর্টিলারি রাউন্ড, ১০৫ মিমি ট্যাঙ্ক গোলাবারুদ এবং জুনি বিমান রকেটের গোলাবারুদ।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ইউক্রেনে ৩০ মিলিয়ন রাউন্ডেরও বেশি ছোট অস্ত্র গোলাবারুদ পাঠাচ্ছে বলে পেন্টাগন জানিয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/১জুন/এসএটি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আন্তর্জাতিক এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :