সুজা হত্যার আসামি মামুন আত্মসমর্পণ করে কারাগারে

আদালত প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৯:২৮

রাজধানীর কাফরুলে গার্মেন্টস কর্মী সরদার সুজা আহমেদ (৩২) হত্যা মামলার চার্জশিটভুক্ত আসামি মো. আব্দুল্লাহ আল মামুনকে কারাগারে পাঠিয়েছে আদালত।

বুধবার তিনি ঢাকার তৃতীয় অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন চাইলে বিচারক মো. রবিউল ইসলাম কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

মামলার ঘটনা থেকে জানা যায়, গোপালগঞ্জের পুখরিয়া গ্রামের মৃত মঈনুদ্দিন আহমদের ছেলে সরদার সুজা আহমেদ (৩২) কাফরুল থানার সেনপাড়ার একটি বাসায় ভাড়া থেকে বনানীর আম্ব্রেলা বাইং হাউজে চেইন এক্সিকিউটিভ হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

২০১৭ সালের ২ ডিসেম্বর রাতে নিহত সুজার ভাই জাকির আহমেদ খবর পান যে, তার ভাই গুরুতর আহত হয়ে সেনপাড়ার আল হেলাল স্পেশালাইজড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। বাড়ি থেকে আসার পর দেখতে পান ভাই মারা গেছেন এবং ভাইয়ের দুটি মোবাইল ও মোটরবাইক নেই। পরে তিনি জানতে পারেন ঘটনার আগে তিনজন অজ্ঞাতনামা ব্যক্তি ওই বাসায় ঢুকেছিল।

ওই ঘটনায় জাকির আহমেদ ওই বছর ৪ ডিসেম্বর কাফরুল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

পরবর্তী সময়ে মামলার তদন্তে আব্দুল্লাহ আল মুন নামে এক কিশোর গ্রেপ্তার হলে বেরিয়ে আসে হত্যার রহস্য। মিরপুর বাংলা কলেজে এইচএসসি প্রথম বর্সের ছাত্র ওই কিশোর আদালতে স্বীকারোক্তি দিয়ে বলেন, নিহত সুজার সাথে ২০১৭ সালের জুন মাসে সংসদ ভবনের সামনে পরিচয়ের সূত্রধরে তাদের মধ্যে বন্ধুত্ব হয়। মাঝে মধ্যেই তিনি সুজার বাসায় গিয়ে রাতে থাকতেন। তিনি ইয়াবায় আসক্ত ছিলেন। টাকা না থাকায় বন্ধু জিদান ও মামুনের সঙ্গে সুজাকে হত্যার পরিকল্পনা করেন। সুজার মোবাইল ও মোটর সাইকেল চুরির জন্য এই হত্যার পরিকল্পনা করেন। পরিকল্পনা অনুযায়ী ২০১৭ সালের ২ ডিসেম্বর সন্ধ্যার পর দুই বন্ধু জিদান ও মামুনকে নিয়ে সাজার বাসায় আসেন। কোমরের বেল্ট দিয়ে তিনি সুজার পা বাঁধেন, জিদান গামছা দিয়ে হাত বাঁধেন। এরপর হত্যা করে সুজার মোটরবাইক ও দুটি মোবাইল নিয়ে তারা পালিয়ে যান। 

মামলাটিতে তিনজনের বিরুদ্ধে পুলিশ চার্জশিট দাখিল করেছে। যার মধ্যে বুধবার কারাগারে যাওয়া মামুন প্রাপ্তবয়স্ক হওয়ায় তার বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ৩০২ ধারায় এবং অপর দুই আসামি নিহত সুজার বন্ধু আব্দুল্লাহ আজাদ মুন (১৭) এবং মো. রাশিবুল ইসলাম জিদান (১৭) অপ্রাপ্ত বয়স্ক হওয়ায় শিশু আইনে চার্জশিট দাখিল করে।

(ঢাকাটাইমস/০৪সেপ্টেম্বর/আরজেড/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আদালত বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত