দারিদ্র্য দমাতে পারেনি অদম্য দিপাকে

রানা আহমেদ, সিরাজগঞ্জ
 | প্রকাশিত : ১৮ এপ্রিল ২০২১, ১২:২৯

দিপার বয়স যখন মাত্র তিন মাস তখনই মারা যান তার মা। পাঁচ বছর বয়সে হারান বাবাকেও। এরপর থেকে ছোট চাচার সংসারে শুরু হয় তার জীবনের লড়াই। শতকষ্ট আর অনটনের মাঝেও লড়াইটা চালিয়ে যাওয়ার সাফল্য মিলেছে তার। জীবনের লক্ষ্য ছোঁয়ার পথে অনেকটাই এগিয়ে গেলেন সিরাজগঞ্জের মেয়ে দিপা সরকার। দিপা এ বছর কুমিল্লা মেডিকেল কলেজে পড়ার সুযোগ পেয়েছেন।

দিপা সরকার সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার পোতাজিয়া ইউপির আলোকদিয়ার গ্রামের মৃত আবুল কালাম সরকার ও মৃত শিরিন বেগমের ছোট মেয়ে। তারা দুই ভাই, তিন বোন। ২০১৮ সালে নুকালী বহু পার্শিক উচ্চ বিদ্যালয় থেকে গোল্ডেন এ প্লাস পেয়ে এসএসসি এবং শাহজাদপুর সরকারি কলেজ থেকে ২০২০ সালে গোল্ডেন এ প্লাস পেয়ে এইচএসসি পাস করেন দিপা।

দিপার মামা আলতাফ হোসেন জানান, দিপার যখন তিন মাস বয়স তখন দিপার মা মারা যায়। তারপর তার বাবা আরেকটা বিয়ে করলে দিপা তখন তার ছোট চাচার কাছে মানুষ হতে থাকে। দিপার বয়স যখন পাঁচ বছর হয় তখন তার বাবাও মারা যায়। তখন থেকেই শুরু হয় দিপার কষ্টের জীবন। কিন্তু অভাব দিপাকে দমিয়ে রাখতে পারেনি। লেখাপড়ার প্রতি অদম্য আগ্রহ সাফল্য এনে দিয়েছে তাকে। দিপার এমন সাফল্যে সবাই খুশি।

দিপা বলেন, ‘বাবা-মা হারিয়ে চাচার বাড়ি থেকে লেখাপড়া করলেও কখনো মনোবল হারাইনি। সবার কাছে দোয়া চাই, আমি যেন ভালোভাবে মেডিকেলে লেখাপড়া করে মানুষের সেবায় নিয়োজিত থাকতে পারি ও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে পারি।’

দিপা তার ছোট চাচা বিপুল ও চাচির প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। (ঢাকাটাইমস/১৮এপ্রিল/পিএল)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :