শেয়ারবাজার নিয়ে গুজব ছড়ানো ৩১ ফেসবুক আইডি বন্ধ

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৯:৩৫

বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) কমিশনার অধ্যাপক ড. শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ জানিয়েছেন, শেয়ারবাজার নিয়ে সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব সৃষ্টিকারী ৩১টি আইডি ইতিমধ্যে নিষ্ক্রিয় করা হয়েছে। অন্যান্য আইডিগুলোও প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। পর্যায়ক্রমে গুজব সৃষ্টিকারী অন্যান্য আইডিগুলোও নিষ্ক্রিয় করা হবে।

বুধবার (১৫ সেপ্টেম্বর) বিএসইসি, বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) ও বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের ডিজিটাল সিকিউরিটি এজেন্সির প্রতিনিধিদের মধ্যে ‘সোশ্যাল মিডিয়া ও অন্যান্য প্ল্যাটফর্ম ব্যবহারে করে শেয়ার বাজারে গুজব সৃষ্টি প্রতিরোধ’ সংক্রান্ত এক আলোচনা সভায় তিনি এই তথ্য জানান।

আলোচনা সভায় বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম, পরিচালক রাজিব আহমেদ, অতিরিক্ত পরিচালক মোহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন, বিটিআরসির মহাপরিচালক (সিস্টেম অ্যান্ড সার্ভিসেস) ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাসিম পারভেজ, ডিজিটাল সিকিউরিটি এজেন্সির পরিচালক (সিএ অপারেশন ও নিরাপত্তা) তারেক এম বরকতউল্লাহ-সহ সংস্থাগুলোর বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এতে বিএসইসির প্রতিনিধিরা শেয়ারবাজারে সোশ্যাল মিডিয়া ও অন্যান্য প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে যেকোনো তালিকাভুক্ত সিকিউরিটিজের বাজারমূল্য বা অন্য কোনো বিষয়ে পূর্বানুমান কিংবা বিনিয়োগকারীর স্বার্থ ক্ষুণ্ন করে এমন মন্তব্য বা পোস্ট প্রতিরোধে গুরুত্বারোপ করেন। এছাড়া সিকিউরিটিজ মার্কেট ও বিনিয়োগকারীদের স্বার্থ রক্ষায় যেকোনো ব্যক্তি, ব্যক্তিবর্গ বা কোনো প্রতিষ্ঠান কর্তৃক সোস্যাল মিডিয়া বা অন্য কোনো মাধ্যমে বিএসইসি, ডিএসই এবং সিএসইর নাম বা লোগো ব্যবহার করে কোনো তথ্য বা প্রতিবেদন প্রকাশ করা থেকে বিরত রাখার বিষয়টি নিশ্চিত করার বিষয়ে সম্ভাব্য কৌশল প্রণয়ন ও অংশীজনদের সাথে সমন্বিতভাবে কাজ করার বিষয়টি আলোচিত হয়।

গত ২৪ মে বিএসইসি ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার বাজার নিয়ে গুজব রটনাকারী ব্যক্তিদের চিহ্নিত করতে বিএসইসির পরিচালক রাজিব আহমেদের নেতৃত্বে সেন্ট্রাল ডিপোজিটরি বাংলাদেশ লিমিটেড (সিডিবিএল) ও ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে চার সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করে।

তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনে ডিএসই ইনভেস্টরস ক্লাব, উই ওয়ান্ট টু বি গেইনার, দ্য থার্ড আই, শেয়ারবাজার- ডিএসই ইনভেস্টরস ক্লাব, পাবলিক বিজনেস ক্লাব, শেয়ার মার্কেট সুপারস্টার গ্রুপ, দ্য লয়াল ক্লাব, শেয়ার বাজারে আড্ডা, রাকিব প্রফিট অ্যান্ড জয়, শেয়ারবাজার জিন্দাবাদ, স্টক মার্কেট টুডে, বাংলাদেশ পুঁজিবাজার বিনিয়োগকারী জোট, রকস্টার ক্লাব, রয়্যাল কিং মানি মেকারস, বাদশা জোনসহ ৮৬টি ফেসবুকভিত্তিক গ্রুপ গুজব ছড়িয়ে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত বিভিন্ন সিকিউরিটিজের বাজার মূল্যকে কৃত্রিমভাবে প্রভাবিত করছে বলে উঠে আসে।

এর পরিপ্রেক্ষিতে বিটিআরসি যাচাই-বাছাই শেষে ৩১টি গ্রুপ বন্ধ করে দিয়েছে। এছাড়া বাকিগুলো নিষ্ক্রিয়করণে বিভিন্ন উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

বিএসইসির কমিশনার অধ্যাপক ড. শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে নিয়ন্ত্রক সংস্থার বিভিন্ন সংস্কারমূলক কার্যক্রমের পরিপ্রেক্ষিতে শেয়ারবাজার নিয়ে যে আস্থা সৃষ্টি হয়েছে, সোশ্যাল মিডিয়া ও অন্যান্য প্লাটফর্ম ব্যবহারে করে গুজব সৃষ্টি করে কোনো ব্যক্তি বা গোষ্ঠী যেন তা নস্যাৎ করতে না পারে, সেটা নিশ্চিত করতে হবে। আর এজন্য প্রয়োজন বিটিআরসি ও ডিজিটাল সিকিউরিটি এজেন্সিসহ অন্যান্য অংশীজনের সাথে সমন্বিত উদ্যোগ গ্রহণ।

তিনি আরও বলেন, শেয়ারবাজার সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত/বক্তব্য দেয়ার ক্ষেত্রে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের সাথে আলোচনা, পরামর্শ ও সমন্বয় সংক্রান্ত ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ, অর্থ মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা পরিপালন এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজব ছড়ালে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন, ২০১৮ মোতাবেক শাস্তির বিধান সংক্রান্ত কমিশনের আদেশ পরিপালন ও সংশ্লিষ্ট সবাইকে উক্ত সতর্কতা অবলম্বনের অনুরোধ জানিয়েছেন।

সভায় বিটিআরসির সাথে প্রতি তিন মাসে একটি করে সমন্বয় সভা করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এছাড়াও বিএসইসির পরিচালক রাজিব আহমেদ ও বিটিআরসির জ্যেষ্ঠ সহকারী পরিচালক তৌসিফ শাহরিয়ার নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে ফোকাল পয়েন্ট হিসেবে কাজ করবেন বলে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

(ঢাকাটাইমস/১৫সেপ্টেম্বর/আরএ/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :