হবিগঞ্জে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৩ আগস্ট ২০২২, ২৩:০১

হবিগঞ্জের রিচি অগ্নিকোনা গ্রামে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় হত্যা মামলা করে বিপাকে বাদি। মামলা তুলে নিতে আসামিরা চাপ প্রয়োগ করছে বলে অভিযোগ নিহতর পরিবারের। নিহতর মা কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, আমার বিলকিছ আক্তার প্রায় সময়ই হাসি মুখে থাকতো। যা চাইতো তাই দেওয়ার চেষ্টা করতাম, মেয়ে সুখে থাকার জন্য মৃত্যুর সাপ্তাহ খানেক পুর্বেও হাস,মোরগ, পিঠাচিড়া, কাঁঠাল সঙ্গে দিয়েছি। তারপরও স্বামীর মন পেল না আমার মেয়ে বিলকিছ। দরিদ্র মা-বাবা তাদের অভাব-অনটনের সংসারে এই মেয়ের মুখ দেখেই তৃপ্তি পেতেন। মেয়ের হাসিতে হাসতেন মা-বাবা। কিন্তু তাদের সেই হাসি কেড়ে নিয়েছে ঘাতক স্বামী। মেয়েকে হারিয়ে দিশেহারা মা-বাবা ভাই বোন।

নিহত বিলকিস আক্তার শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলার পুরাসুন্দা এলাকার আব্দুর রহিম ওরফে জাহেদ মিয়ার মেয়ে।

নিহতর মা আম্বিয়া খাতুন জানান, প্রায় আড়াই বছর আগে হবিগঞ্জ সদর উপজেলার রিচি অগ্নিকোণা এলাকার মৃত রজব আলীর পুত্র মো: মোশাহিদ মিয়ার সঙ্গে বিয়ে হয় । বিয়ের পর তাদের দাম্পত্য জীবনে মাহমুদ(৩) নামে একটি পুত্র সন্তান জন্ম গ্রহন করে । সংসার কয়েকদিন ভাল চললেও বিলকিসের জীবনে কাল হয়ে দাড়ায় যৌতুক নামক যন্ত্রণা। বিলকিসের মায়ের দাবী গত ১২ জুলাই শ্বশুর বাড়ির লোকজন যৌতুকের জন্য শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করতে থাকে বিলকিছকে । শেষ পর্যন্ত স্বামী মোশাহিদ ও তার পরিবারের সদস্যরা বিলকিসকে মারধর করে রশি দিয়ে বেধে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করে।

বিলকিসের মা আম্বিয়া খাতুন বলেন, এ ঘটনার পর বিলকিসের শ্বশুর বাড়ির, লোকজন স্ট্রোক করে মারা গেছে বলে আমার ছোট মেয়ের মোবাইলে জানিয়ে দেয়। পরবর্তীতে এ ঘটনায় ৪ জনের নাম উল্লেখ করে আদালতে হত্যা মামলা দায়ের করেন নিহতর ভাই রুবেল মিয়া।

নিহতর ভাই মামলার বাদী রুবেল মিয়া বলেন, উক্ত ঘটনা সংক্রান্ত প্রতিবেদন দিতে সদর মডেল থানাকে আদেশ দেয়া হয় এবং বিচারক পিএম রিপোর্ট প্রাপ্তি সাপেক্ষে আদেশ দেবেন বলে জানান।

বিলকিছ মারা যাওয়ার মঙ্গলবার ১ মাস ১১দিন পূর্ণ হয়েছে।

এদিকে বিলকিসের মা ও পরিবার বিচারের আশায় হতাশায় ভূগছেন। তারা এ হত্যায় জড়িত আসামিদের গ্রেপ্তার করে উপযুক্ত শাস্তির দাবি জানান।

(ঢাকাটাইমস/২৩আগস্ট/এআর)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :