রাজধানীর প্রবেশপথগুলোতে নিরাপত্তা চৌকি, বেড়েছে তল্লাশি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩:০০ | প্রকাশিত : ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ২২:০৩

রাজধানীর প্রবেশপথ গাবতলী, যাত্রাবাড়ী ও কমলাপুর রেলস্টেশন দিয়ে ঢাকায় প্রবেশের সময় সবাইকে তল্লাশি করা হচ্ছে।

বুধবার সন্ধ্যার পর নিরাপত্তা চৌকিতে বাড়ানো হয়েছে পুলিশ সদস্য। কাউকে সন্দেহভাজন মনে হলে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। সঙ্গে থাকা ব্যাগ তল্লাশি করে ঢাকায় প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে। তবে ঢাকা থেকে বের হতে গেলে কাউকে তল্লাশি করা হচ্ছে না।

একইদিন বিকালে বিএনপির দলীয় কার্যালয়ের সামনে পুলিশের সঙ্গে দলটির নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের পর প্রবেশদ্বার চৌকিতে নিরাপত্তা কড়াকড়ি করা হয়। তাছাড়া ১০ ডিসেম্বর ঢাকায় বিএনপির গণসমাবেশকে কেন্দ্র করে রাজধানীতে যাতে কোনো ধরনের নাশকতার ঘটনা না ঘটে সেজন্য সতর্ক অবস্থানে রয়েছে পুলিশ। তাছাড়া বুধবার বিকালে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে মকবুল হোসেন নামে বিএনপির একজন কর্মী নিহত হয়। তার মরদেহ ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। এছাড়া দলটির অনেক নেতাকর্মী আহত হয়েছেন। আবার অনেক সিনিয়র নেতাকে আটক করেছে পুলিশ।

বিএনপির পক্ষে থেকে অভিযোগ করা হচ্ছে, পুলিশ অভিযান ও চেকপোস্ট বসিয়ে আসন্ন গণসমাবেশেকে কেন্দ্র করে তাদের দলের নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার করছে।

রাজধানী ঘুরে দেখা গেছে, গাবতলীর আমিনবাজার ব্রিজ সংলগ্ন পর্বত সিনেমা হলের সামনে পুলিশের নিরাপত্তা চৌকি বসানো হয়েছে। সেখানে দেড় ডজনের বেশি পুলিশ সদস্য ঢাকায় প্রবেশ করাদের তল্লাশি করছেন। চেকপোস্টে ঢাকামুখী দূরপাল্লার যানবাহনগুলোতে তল্লাশি চলছে। বিশেষ করে বাস, ট্রাক, মাইক্রোবাস, প্রাইভেটকার ও মোটরসাইকেল আটকিয়ে চালকদের এবং যাত্রীদের নানা বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। যাত্রীদের কাছে পুলিশ জানতে চাচ্ছে তারা কী কারণে, কেন ঢাকায় এসেছেন। যাদের সন্দেহজনক মনে হচ্ছে তাদেরকে আরও অধিকতর জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

পুলিশ বলছে, এটি রুটিন ওয়ার্ক; সারা বছরই কার্যকর থাকে। ১০ ডিসেম্বর বিএনপির গণ সমাবেশকে কেন্দ্র করে চেকপোস্টে পুলিশ বাড়ানো হয়েছে।

ডিএমপির দারুস সালাম থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) তোফায়েল আহমেদ ঢাকাটাইমসকে বলেন, 'গাবতলী এলাকার চেকপোস্ট অনেক আগে থেকেই ছিল। রুটিন ওয়ার্ক হিসেবে ঢাকায় আসা গাড়ি অনেক সময় তল্লাশি করা হয়। তবে বিএনপির সমাবেশকে কেন্দ্র করে চেকপোস্টে পুলিশের সংখ্যা বৃদ্ধি করা হয়েছে।'

এদিকে যাত্রাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল ইসলাম ঢাকাটাইমসকে বলেন, 'আমরা নিরাপত্তা চৌকি বসিয়েছি। তবে কাউকে হয়রানী করা হচ্ছে না। তারা (বিএনপি) ঢাকায় প্রবেশ করুক, আমরা কিছু বলব না। তবে নাশকতার উদ্দশ্যে কেউ আসলে তাদের ছাড় দেয়া হবে না।'

অন্যদিকে কমলাপুর রেলস্টেশনের সামনে বহিঃগমন পথে তল্লাশি চৌকি বসিয়েছে পুলিশ। ঢাকা রেলওয়ে থানার (কমলাপুর) ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফেরদৌস আহমেদ বিশ্বাস বলেন, বিএনপির সমাবেশ ঘিরে নয়, কমলাপুরে নিয়মিত কাজের অংশ হিসেবে তল্লাশি, চেকপোস্ট পরিচালনা ও সন্দেহভাজনদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

যোগাযোগ করা হলে শাহজাহানপুর থানার ওসি মনির হোসেন মোল্লা বলেন, 'সুনির্দিষ্ট তথ্য থাকলে আমরা চেকপোস্ট স্থাপন করি, তল্লাশি করি। কমলাপুর রেলস্টেশন এলাকায় চেকপোস্ট বসানো হয়েছে। অতিরিক্ত পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। নিয়মিত কাজের অংশ হিসেবেই সন্দেহভাজনদের জিজ্ঞাসাবাদ ও তল্লাশি করা হচ্ছে। তবে কাউকে হয়রানি করা পুলিশের উদ্দেশ্য নয়।'

(ঢাকাটাইমস/০৭ডিসেম্বর/এসএস/কেএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

জাতীয় এর সর্বশেষ

‘বিপজ্জনক’ হয়ে উঠছে ঢাকার বায়ু

মালয়েশিয়ায় বাংলাদেশি কর্মী নিয়োগে বড় পরিবর্তন আসছে

ভোটের আগে মতিঝিল পর্যন্ত মেট্রোরেল চালুর সুপারিশ

ঋণ পরিশোধে শ্রীলঙ্কাকে আরও ৬ মাস সময় দিল বাংলাদেশ

বেসরকারি এক মেডিকেল কলেজের অনুমোদন বাতিল ও পাঁচটির কার্যক্রম স্থগিত

ভিশন ২০৪১ বাস্তবায়নে বাংলাদেশের পাশে থাকবে চীন: রাষ্ট্রদূত

বাংলাদেশ থেকে ‘সিকিউরিটি গার্ড’ নিতে আগ্রহী মালয়েশিয়া

বাংলাদেশি কর্মী নিতে অভিবাসন ব্যয় কমানোর আভাস দিলেন সফররত মালয়েশিয়ার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

মার্চের প্রথম সপ্তাহে দেশে আসছে আদানির বিদ্যুৎ: প্রতিমন্ত্রী

কেবল সাধারণ মানুষই নয়, প্রধানমন্ত্রী, এমপিকেও কর দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :